বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > CBI-এর প্রশ্নবাণের মুখে পার্থ, আইকোর নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করতে শিল্পভবনে তদন্তকারীরা
পার্থ চট্টোপাধ্যায় - বেহালা-পশ্চিমে এগিয়ে গেলেন তৃণমূল প্রার্থী। (ছবি সৌজন্য এএনআই)
পার্থ চট্টোপাধ্যায় - বেহালা-পশ্চিমে এগিয়ে গেলেন তৃণমূল প্রার্থী। (ছবি সৌজন্য এএনআই)

CBI-এর প্রশ্নবাণের মুখে পার্থ, আইকোর নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করতে শিল্পভবনে তদন্তকারীরা

  • পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের প্রস্তাব মেনে নিয়েই শিল্পভবনে তাঁর অফিসে পৌঁছে গেল সিবিআইয়ের তদন্তকারী অফিসাররা।

সিবিআই দফতরে হাজিরা দেওয়ার কথা থাকলেও তা এড়িয়ে গিয়েছিলেন রাজ্যের মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। চিঠি দিয়ে তদন্তকারীদের তিনি জানিয়েছিলেন, প্রয়োজনে তাঁর বাড়ি বা দফতরে এসে যাতে তাঁকে প্রশ্ন করা হয়। কৌশলী পথ অবলম্বন করে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের সেই প্রস্তাব মেনে নিয়েই শিল্পভবনে তাঁর অফিসে পৌঁছে গেল সিবিআইয়ের তদন্তকারী অফিসাররা।

আইকোর জালিয়াতি মামলায় পার্থর উদ্দেশে সিবিআইয়ের প্রশ্ন, একজন চিটফান্ড সংস্থার মালিকের সঙ্গে তাঁর যোগাযোগ কীভাবে হয়? তিনিও কি এই চিটফান্ড থেকে কোনও ভাবে লাভবান হয়েছিলেন? কেন সেই চিটফান্ড সংস্থার প্রশংসা করতে শোনা যায় তাঁকে? এইসব বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করার জন্য এদিন পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে তলব করে সিবিআই। তবে সেই হাজিরা এড়ালে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের অফিসেই পৌঁছে যান তদন্তকারীরা।

উল্লেখ্য, সিবিআইয়ের তরফে এর আগেও পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে একাধিকবার আইকোর মামলায় নোটিশ পাঠানো হয়েছিল। কিন্তু রাজনৈতিক কর্মসূচির কথা জানিয়ে এর আগেও পার্থ চট্টোপাধ্যায় সেই হাজিরা এড়িয়ে গিয়েছিলেন। এবারও নির্বাচনের কাজে ব্যস্ততার কথা উল্লেখ করে সিবিআইয়ের হাজিরা এড়ালেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়। 

এই নিয়ে সিবিআইকে চিঠি দিয়ে তিনি জানিয়েছিলেন, ভোটের প্রচারের কাজে তিনি এই মুহূর্তে ব্যস্ত রয়েছেন তিনি। তাছাড়া তিনি প্রবীণ নাগরিক তাই তিনি সিবিআই দফতরে যেতে পারবেন না। প্রয়োজনে তাঁর বাড়িতে গিয়ে সিবিআইয়ের গোয়েন্দারা জিজ্ঞাসাবাদ করতে পারেন। এরপরই এই বিষয় সিবিআইয়ের তরফে কিছু না জানিয়েই পদক্ষেপ নেওয়া হল। কৌশল অবলম্বনে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের কথা মোতাবেক তাঁর কাছে পৌঁছে গেলেন তদন্তকারীরা।

বন্ধ করুন