বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > উন্নয়নই লক্ষ্য, লন্ডন ও ম্যাঞ্চেস্টার কর্পোরেশনের সঙ্গে চুক্তিতে কলকাতা পুরসভা
কলকাতা পুরসভা ভবন

উন্নয়নই লক্ষ্য, লন্ডন ও ম্যাঞ্চেস্টার কর্পোরেশনের সঙ্গে চুক্তিতে কলকাতা পুরসভা

  • কলকাতাকে লন্ডন করার কথা আগেই জানিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর তারপর থেকে শহরের দুর্গন্ধযুক্ত ভ‌্যাট সরিয়ে ফেলা হয়েছে। সাদা এলইডি আলোয় শহরে মুড়ে ফেলা হয়েছে। ত্রিফলা বাতিতে সেজে উঠেছে তিলোত্তমা কলকাতা।

এবার লন্ডন এবং ম্যাঞ্চেস্টার দুই কর্পোরেশনের সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধছে কলকাতা পুরসভা। তাই ব্রিটিশ সরকারের আমন্ত্রণে মেগা সিটি উন্নয়ন প্রকল্প পরিদর্শনে যাচ্ছেন পুরকর্তারা। জানা গিয়েছে, সেখানেই ইংল্যান্ডের দুই কর্পোরেশনের সঙ্গে একাধিক মউ স্বাক্ষরও করবেন কলকাতা পুরসভার কর্তারা। তারপর কলকাতা শহরে আরও উন্নত নাগরিক পরিষেবা নিয়ে আসা হবে বলে খবর।

বিষয়টি ঠিক কী ঘটতে চলেছে?‌ কলকাতা পুরসভা সূত্রে খবর, আগামী ২৭ জুন পুরসভার কমিশনার বিনোদ কুমারকে নিয়ে লন্ডন রওনা হওয়ার কথা ডেপুটি মেয়র অতীন ঘোষের। রাজ্যে বর্ষা সামলাতে ব্যস্ত থাকবেন বলে মেয়র ফিরহাদ হাকিম যাচ্ছেন না। দুই ব্রিটিশ শহরে নানা প্রকল্প সরেজমিনে পরিদর্শন করবেন এবং কলকাতার সবুজায়ন ও পরিবেশ নিয়ে নানা কথাও তুলে ধরবেন ডেপুটি মেয়র।

কী বলছেন কলকাতা পুরসভার মেয়র?‌ এই বিষয়ে মেয়র ফিরহাদ হাকিম বলেন, ‘‌মেয়র না গেলেও কলকাতা তো উন্নয়নে পিছিয়ে থাকতে পারে না। তাই ডেপুটি মেয়র যাচ্ছেন। দুই ব্রিটিশ শহরের সঙ্গে আমাদের বেশ কিছু মউ চুক্তি হবে।’‌ ২৭ জুন ডেপুটি মেয়র লন্ডন যাবেন এবং ফিরবেন ৩ জুলাই। আর ডেপুটি মেয়র অতীনবাবু বলেন, ‘‌ব্রিটিশ সরকারের সুসংহত মেগাসিটি প্রকল্পগুলি যেমন আমরা সরেজমিনে দেখব, তেমনই কলকাতার নানা উন্নয়নও আমরা দেখাব।’‌

উল্লেখ্য, কলকাতাকে লন্ডন করার কথা আগেই জানিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর তারপর থেকে শহরের দুর্গন্ধযুক্ত ভ‌্যাট সরিয়ে ফেলা হয়েছে। সাদা এলইডি আলোয় শহরে মুড়ে ফেলা হয়েছে। ত্রিফলা বাতিতে সেজে উঠেছে তিলোত্তমা কলকাতা। গঙ্গার ঘাট থেকে শুরু করে শহরের রাস্তাঘাট, পার্ক, বাগান সাজিয়ে তোলা হয়েছে। গত ১১ বছরে শহরের পরিবেশ পাল্টে গিয়েছে। একাধিক আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেয়েছে কলকাতা।

বন্ধ করুন