বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > অবসরের দিনই কলকাতা পুরনিগম কর্মীদের দেওয়া হবে পেনশনের নথিপত্র, জানালেন ফিরহাদ
ফিরহাদ হাকিম। (ছবি সৌজন্য টুইটার)
ফিরহাদ হাকিম। (ছবি সৌজন্য টুইটার)

অবসরের দিনই কলকাতা পুরনিগম কর্মীদের দেওয়া হবে পেনশনের নথিপত্র, জানালেন ফিরহাদ

তিন মাস থেকেই পেনশনের ফাইল তৈরির কাজ শুরু হয়ে যাবে।

মাঝেমধ্যেই অভিযোগ ওঠে, অবসরের দীর্ঘদিন পরও মিলছে না পেনশন। বারবার কলকাতা পুরনিগমের চক্কর কাটতে হচ্ছে। সেই সমস্যার সুরাহা করতে এবার পুরনিগমের তরফে জানানো হয়েছে, যেদিন পুরকর্মীরা অবসর নেবেন, সেদিনই পেনশনের প্রয়োজনীয় নথিপত্র দিয়ে দেওয়া হবে। 

শনিবার পুরনিগমের প্রশাসকমণ্ডলীর চেয়ারম্যান ফিরহাদ হাকিম জানান, কোনও কর্মীর চাকরির মেয়াদ শেষের তিন মাস আগে থেকেই পেনশনের ফাইল তৈরির কাজ শুরু হবে। ওই কর্মী যে বিভাগে কাজ করেন, সেই বিভাগই ফাইল তৈরি করবে। তাতে একটি ফাইল আইডি থাকবে। সেই আইডি নম্বর থাকবে সংশ্লিষ্ট কর্মীর কাছেও। যা যা তথ্য (কোনও বিভাগীয় তদন্ত হয়েছে কিনা, সাসপেন্ড হয়েছেন কিনা, সেই সংক্রান্ত বিভিন্ন তথ্য) যোগ করা হবে বা আপডেট থাকবে, সংশ্লিষ্ট কর্মীকে সেই সংক্রান্ত মেসেজ পাঠানো হবে। ফাইল তৈরির কাজ শেষ হয়ে গেলে সংশ্লিষ্ট কর্মীকে জানিয়ে দেবে পুরনিগম। তারপর একটি পেনশন নম্বর (পিপিও) জেনারেট হবে। তার ভিত্তিতে পেনশন ফাইল কোথায় আছে, তা সংশ্লিষ্ট কর্মীকে জানিয়ে দেবে পুরনিগম।

তিন মাস আগে থেকেই পেনশন দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হলেও কোনও কারণে সমস্যা হলে পুরনিগমের সঙ্গে যোগাযোগ করতে হবে জানিয়েছেন ফিরহাদ। তিনি জানান, যদি অবসরের পর হাতে-হাতে পেনশন ফাইল দেওয়ার ক্ষেত্রে সমস্যা হয়, তাহলে যুগ্ম-কমিশনারের কাছে আসতে হবে। একদিনের মধ্যে সংশ্লিষ্ট কর্মীর পেনশন ফাইল ছেড়ে দেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন ফিরহাদ। সেইসঙ্গে তিনি জানান, অবসরের তিন মাস থেকেই ফাইল তৈরির প্রক্রিয়া শুরু হওয়ার ফলে নিয়মভঙ্গ, সাসপেন্ডের মতো বিষয়গুলি নিয়ে সমস্যা দেখা দিলে আগেভাগেই সমাধান করে নেওয়া যাবে। ফলে অবসরের পর সেই বিষয়গুলির জন্য ফাইল আটকে থাকবে না।

বন্ধ করুন