বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > জেনে নিন, লক ডাউনে খোলা বা চালু থাকবে কী কী?
রবিবার 'জনতা কার্ফু' চলাকালীন কলকাতার পাইকারি বাজারে বিশ্রাম নিচ্ছেন এক ব্যাপারী।
রবিবার 'জনতা কার্ফু' চলাকালীন কলকাতার পাইকারি বাজারে বিশ্রাম নিচ্ছেন এক ব্যাপারী।

জেনে নিন, লক ডাউনে খোলা বা চালু থাকবে কী কী?

  • সোমবার বিকেলে গোটা পশ্চিমবঙ্গে চালু হচ্ছে লক ডাউন। আপাতত শুক্রবার পর্যন্ত বন্ধ থাকবে সব কিছু।


রবিবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর আহ্বানে দেশ জুড়ে পালিত হচ্ছে ‘জনতা কার্ফু’। করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে বাড়িতে থেকে গোটা দিনটা কাটিয়েছেন কোটি কোটি দেশবাসী। সোমবার থেকে ফের এমনই লক ডাউন চালু করতে চলেছে রাজ্য সরকার। সোমবার বিকেল চারটে থেকে শুক্রবার পর্যন্ত গোটা পশ্চিমবঙ্গ জুড়ে বন্ধ থাকবে যাবতীয় প্রতিষ্ঠান, পরিষেবা ও গণপরিবহণ।

সোমবার বিকেল ৪টের পর বন্ধ থাকবে সমস্ত দোকান। চলবে না কোনও গাড়ি। সোমবার সকাল থেকে ট্রেন বন্ধ থাকবে বলে আগেই জানিয়েছে রেল। দেশের কোথাও কোনও যাত্রীবাহী ট্রেন চলবে না বলে রেলের তরফে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়ছে।

অভূতপূর্ব এই লক ডাউনে যদিও চালু থাকবে সমস্ত জরুরি পরিষেবা। নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের যাবতীয় দোকানও খোলা থাকবে এই ৫ দিন। এক নজরে দেখেন নিন কী কী পরিষেবা খোলা থাকবে লক ডাউন চলাকালীন।

1. থানা পুলিশ, আদালত ও জেল

2. দমকল, সিভিল ডিফেন্স

3. হাসপাতাল, ওষুধের দোকান, চশমার দোকান, প্যাথলজিক্যাল ল্যাবরেটরি।

4. ব্যাঙ্ক ও এটিএম পরিষেবা।

5. বিদ্যুৎ দফতর ও বিদ্যুৎ পরিষেবা।

6. জল পরিশোধন, পরিবহণ পরিষেবা।

7. রেশন দোকান, মুদি দোকান, সবজি, ফল, মাছ, মাংস, দুধ, পাউরুটির দোকান।

8. মুদি সামগ্রী ও খাদ্য বস্তুর হোম ডেলিভারি পরিষেবা।

9. পেট্রল পাম্প, রান্নার গ্যাসের দোকান ও ডিলারশিপ।

10. সংবাদ মাধ্যম ও সোশ্যাল মিডিয়া।

সরকারের তরফে জানানো হয়েছে, বাজারে সমস্ত নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের সরবরাহ পর্যাপ্ত থাকবে। ফলে অতিরিক্ত জিনিস কিনে মজুত করতে নিষেধ করেছে সরকার। সঙ্গে অকারণে বাড়ির বাইরে বেরোলে প্রশাসন আইনি ব্যবস্থা নিতে পারে বলে জানানো হয়েছে রবিবার নবান্ন থেকে জারি বিজ্ঞপ্তিতে।

বন্ধ করুন