বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > কলকাতার সিনেমা হলে ঋতুমতী মহিলাকে শৌচাগার ব্যবহারে বাধা দেওয়ার অভিযোগ
ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

কলকাতার সিনেমা হলে ঋতুমতী মহিলাকে শৌচাগার ব্যবহারে বাধা দেওয়ার অভিযোগ

  • পরে ওই দম্পতির তরফে জানানো হয়েছে, শনিবার পুলিশের হস্তক্ষেপে তাঁর কাছে ক্ষমা চেয়েছেন ‘মিনার’-এর ম্যানেজার।

আন্তর্জাতিক নারী দিবসের কয়েক ঘণ্টা আগে কলকাতার সিনেমা হলে শৌচালয় ব্যবহার করতে গিয়ে বাধার মুখে এক ঋতুমতী মহিলা। কাঠগড়ায় উত্তর কলকাতার হাতিবাগান এলাকার ‘মিনার’ সিনেমা হল। ঘটনায় পুলিশের হস্তক্ষেপর পর ক্ষমা চেয়েছ সিনেমা হল কর্তৃপক্ষ। তবে প্রাগৈতিহাসিকতার শিকার ওই হলের কীর্তি নিয়ে ধিক্কার থামছে না সোশ্যাল সাইটে।

শুক্রবার সন্ধ্যায় মিনার সিনেমা হলে স্বামীর সঙ্গে ছবি দেখতে যান এক মহিলা। সেইসময় ঋতুমতী ছিলেন তিনি। অভিযোগ, সিনেমা হলের শৌচাগারে ঢুকতে গেলে তাঁকে বাধা দেন সেখানে কর্তব্যরত কর্মী। বাইরে কোনও শৌচালয় ব্যবহার করতে বলেন তিনি। ঘটনায় স্তম্ভিত মহিলা স্থানীয় শ্যামপুকুর থানায় অভিযোগ জানাতে যান তাঁরা। অভিযোগ, থানা থেকে তাঁদের ফিরিয়ে দেওয়া হয়।

পরে ওই দম্পতির তরফে জানানো হয়েছে, শনিবার পুলিশের হস্তক্ষেপে মহিলার কাছে ক্ষমা চেয়েছেন ‘মিনার’-এর ম্যানেজার।

হল কর্তৃপক্ষের দাবি, মহিলাকে শৌচাগারে যেতে বাধা দেওয়ার সঙ্গে তাঁর ঋতুমতী হওয়ার কোনও সম্পর্ক নেই। সেই ময় হলে শো শুরু হওয়ায় দর্শকরা ঢুকছিলেন। তখন ওই মহিলা শৌচাগারের দিকে যেতে গেলে তাঁকে অপেক্ষা করতে বলা হয়। এতেই উত্তেজিত হয়ে ওঠেন তিনি।


বন্ধ করুন