বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > Illegal Mobile Towers in Kolkata: বাড়ির ছাদে বেআইনিভাবে বসানো মোবাইল টাওয়ার ভেঙে ফেলতে চলছে পুরসভা

Illegal Mobile Towers in Kolkata: বাড়ির ছাদে বেআইনিভাবে বসানো মোবাইল টাওয়ার ভেঙে ফেলতে চলছে পুরসভা

মেয়র পারিষদ (লাইটিং) সন্দীপ রঞ্জন বক্সী।

সন্দীপ রঞ্জন বক্সী জানান, ‘বাড়ির ছাদের উপরে যে বেআইনি টাওয়ারগুলি রয়েছে সেগুলি ভেঙে ফেলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এই টাওয়ারগুলির ফলে শুধুমাত্র যে অর্থনৈতিক ক্ষতি হচ্ছে তাই নয়, এগুলি থেকে যে রেডিয়েশন বের হচ্ছে তার ফলে মানুষের শারীরিক ক্ষতিও হচ্ছে।’

কলকাতা শহরে যত্রতত্র বাড়ির ছাদে প্রায়ই চোখে পড়ে মোবাইল টাওয়ার। এরমধ্যে অনেক মোবাইল টাওয়ার পুরসভার কাছ থেকে অনুমতি না নিয়েই বসানো হয়েছে এ নিয়ে এবার করা পদক্ষেপ নিতে চলেছে কলকাতা পুরসভা। যে সমস্ত মোবাইল টাওয়ার পুরসভার কাছ থেকে উপযুক্ত অনুমতি না নিয়ে বসানো হয়েছে সেই সমস্ত টাওয়ারগুলি ভেঙে ফেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কলকাতার লাইটিং বিভাগের মেয়র পরিষদ সন্দীপ রঞ্জন বক্সী একথা জানিয়েছেন।

সন্দীপ রঞ্জন বক্সী জানান, ‘বাড়ির ছাদের উপরে যে বেআইনি টাওয়ারগুলি রয়েছে সেগুলি ভেঙে ফেলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এই টাওয়ারগুলির ফলে শুধুমাত্র যে অর্থনৈতিক ক্ষতি হচ্ছে তাই নয়, এগুলি থেকে যে রেডিয়েশন বের হচ্ছে তার ফলে মানুষের শারীরিক ক্ষতিও হচ্ছে। সেই কারণেই এগুলি ধাপে ধাপে ভেঙে ফেলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। কলকাতা পুরসভার অনুমতি ছাড়া কেউ এভাবে টাওয়ার বসাতে পারে না যেগুলির অনুমোদন রয়েছে সেগুলি থাকবে।’ যদিও যে সমস্ত বাড়ির ছাদে বেআইনিভাবে টাওয়ার বসানো হয়েছে সেই সমস্ত বাড়ির মালিকদের বিরুদ্ধে আপাতত কোনও ব্যবস্থা না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পুরসভা। তবে সে ক্ষেত্রে বাড়ির মালিকদের ফাইন করা প্রয়োজন বলে মনে করেন মেয়র পারিষদ।

উল্লেখ্য, পুরসভার বিগত অধিবেশনে বেআইনি মোবাইল টাওয়ার বসানো নিয়ে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার কথা জানিয়েছিলেন কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিম। মেয়রের নির্দেশ মতোই আগামী দিনে যত্রতত্র ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে ওঠা মোবাইল টাওয়ার ভেঙে ফেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কলকাতা পুরসভা। এর ফলে মোবাইল টাওয়ার বসানো নিয়ন্ত্রণ করা যাবে বলেই মনে করছেন আধিকারিকরা।

বন্ধ করুন