বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > আনিস কাণ্ডে রিপোর্ট পেশ সিটের, একাধিক প্রশ্ন তুলে দিল কলকাতা হাইকোর্ট
মোমবাতি জ্বালিয়ে আনিস খান স্মরণ। নিজস্ব চিত্র।

আনিস কাণ্ডে রিপোর্ট পেশ সিটের, একাধিক প্রশ্ন তুলে দিল কলকাতা হাইকোর্ট

  • ছাত্রনেতা আনিস খানের মৃত্যু নিয়ে সিটের রিপোর্টে একাধিক অসঙ্গতি ধরা পড়েছে। রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে, ছাদ থেকে পড়ে আনিসের মৃত্যু হয়েছে। এটা নিয়েই বিচারপতি রাজশেখর মান্থা প্রশ্ন তোলেন, বাড়ি যখন পুলিশ ঘিরে ছিল তখন এমন ঘটনা ঘটল কেন?

ছাত্রনেতা আনিস খানের রহস্যমৃত্যুর তদন্ত নিয়ে রিপোর্ট তৈরি করেছে সিট। আর আজ, বৃহস্পতিবার সেই রিপোর্ট কলকাতা হাইকোর্টে জমা পড়তেই একাধিক প্রশ্নের মুখে পড়ল স্পেশাল ইনভেস্টিগেশন টিম (‌সিট)‌। কারণ ছাত্রনেতা আনিস খানের মৃত্যু নিয়ে সিটের রিপোর্টে একাধিক অসঙ্গতি ধরা পড়েছে। রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে, ছাদ থেকে পড়ে আনিসের মৃত্যু হয়েছে। এটা নিয়েই বিচারপতি রাজশেখর মান্থা প্রশ্ন তোলেন, বাড়ি যখন পুলিশ ঘিরে ছিল তখন এমন ঘটনা ঘটল কেন?‌

এদিন আদালতে সিটের রিপোর্টকে চ্যালেঞ্জ করে সওয়াল করেন বিকাশরঞ্জন ভট্টাচার্য। ঠিক কী বলেছেন আনিসের আইনজীবী?‌ আনিসের আইনজীবী বিকাশরঞ্জন ভট্টাচার্য কলকাতা হাইকোর্টকে বলেন, ‘‌মৃত্যুর আগে দেহে আঘাতের চিহ্ন ছিল। কিন্তু সেটা অবজ্ঞা করছে সিট। ঠেলে ফেলা বা পরে যাওয়ার ইঙ্গিত আছে ময়নাতদন্তের রিপোর্টে। সিট সেটাও অস্বীকার করছে। তাই সিবিআই তদন্তের প্রয়োজন।’‌

বিচারপতি ঠিক কী প্রশ্ন তুলেছেন?‌ এদিনের শুনানিতে সিটের কাছে কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতির প্রশ্ন, ‘‌আনিসের বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ থাকলে, তাঁকে ৪১এ নোটিশ পাঠানো প্রয়োজন ছিল। সেই নোটিশ পাঠানো হয়েছিল কী? উল্লেখ নেই রিপোর্টে। পুলিশকর্মীরা সিঁড়ি দিয়ে উঠে কী দেখলেন? রিপোর্টে তার উল্লেখ নেই কেন? আনিস যদি পালাতে গিয়ে পড়ে যায়, তাহলে কীভাবে তার জন্য আইপিসি ৩০৪এ ধারা প্রযোজ্য হবে? বাড়ি যখন পুলিশ ঘিরে ছিল তখন এমন ঘটনা ঘটল কেন?’‌

এই নানা প্রশ্নের উত্তর দিতে পারেননি সিটের আইনজীবী। তবে আগামী মঙ্গলবার সিট এই সব প্রশ্নের উত্তর দেবে। আর বিচারপতি আনিসের পরিবারকে আগামী সাতদিনের মধ্যে এই তদন্তের খামতির কথা উল্লেখ করে হলফনামা জমা দিতে বলেছেন। রাজ্যের পক্ষ থেকে আইনজীবী অমিতেশ বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, ফরেনসিক রিপোর্ট দেখে চার্জশিট দেওয়া হবে।

বন্ধ করুন