বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > কলকাতা লাগোয়া তিন জেলা বাদেও শিল্পতালুক গড়তে জমি সীমায় ছাড় নবান্নের
নবান্ন (‌ছবি সৌজন্য টুইটার)‌
নবান্ন (‌ছবি সৌজন্য টুইটার)‌

কলকাতা লাগোয়া তিন জেলা বাদেও শিল্পতালুক গড়তে জমি সীমায় ছাড় নবান্নের

  • এর আগে শিল্পতালুকে গুদামঘর বা লজিস্টিক সংক্রান্ত কাজকর্ম করা যেত না। সেই নীতি পাল্টে হিমঘর পরিষেবাকেও যুক্ত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার।

‌এতদিন কলকাতা ও তার লাগোয়া তিন জেলায় তা প্রযোজ্য ছিল, এবার রাজ্যে শিল্প তালুক গড়তে সারা রাজ্যেই জমির সীমায় ছাড় পাবেন উদ্যোগপতিরা। সম্প্রতি নবান্নের তরফে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এর ফলে রাজ্যে বিনিয়োগের ক্ষেত্রে শিল্পপতিরা আগ্রহী হবেন বলে ওয়াকিবহাল মহলের মত।

আগে শিল্পতালুক গড়তে হলে ন্যূনতম ২০ একর জমি দেখাতে হত। পরে সেই নিয়ম বদলে তৃণমূল সরকারের তরফে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, কলকাতা, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনায় পাঁচ একর জমি থাকলেই শিল্পতালুক গড়ার অনুমতি পাওয়া যাবে। তবে সেই সিদ্ধান্তেরও আরও কিছুটা বদল আনা হল। রাজ্য সরকারের তরফে জানানো হয়েছে, শুধু এই তিন জেলাতেই নয়, অন্য জেলাতেও যদি উদ্যোগপতিরা শিল্পতালুক গড়তে চান, তাহলেও এই একই নিয়ম প্রযোজ্য হবে। ওয়াকিবহাল মহলের মতে, পাহাড়েও যাতে শিল্প সম্ভাবনা তৈরি হয়, সেই লক্ষ্যেই নিয়মে বদল এনেছে রাজ্য সরকার। এই প্রসঙ্গে রাজ্যের শিল্পমন্ত্রী জানান, রাজ্যে শিল্পে উৎসাহ বাড়াতেই সরকারের এই পদক্ষেপ। এর আগে শিল্পতালুকে গুদামঘর বা লজিস্টিক সংক্রান্ত কাজকর্ম করা যেত না। সেই নীতি পাল্টে হিমঘর পরিষেবাকেও যুক্ত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার।

উল্লেখ্য, রাজ্যে তৃতীয় দফায় ক্ষমতায় এসে শিল্পায়নের ওপর জোর দিয়েছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বাধীন সরকার। ক্ষমতায় আসার পর থেকে প্রতিবছরই বিশ্ব বাংলা শিল্প বাণিজ্য সম্মেলনের আয়োজন করে আসছে রাজ্য সরকার। পরের বছরও এই শিল্প বাণিজ্য সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। তার আগে রাজ্য সরকারের এই উদ্যোগ রীতিমতো তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করা হচ্ছে।

 

বন্ধ করুন