বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > শুক্রবারও জেলায় জেলায় প্রবল কালবৈশাখী, আজও কি মেঘ দেখেই মন ভরাতে হবে কলকাতাকে?
পশ্চিমের আকাশে তৈরি হয়েছে বজ্রগর্ভ মেঘ। ছবি - Windy
পশ্চিমের আকাশে তৈরি হয়েছে বজ্রগর্ভ মেঘ। ছবি - Windy

শুক্রবারও জেলায় জেলায় প্রবল কালবৈশাখী, আজও কি মেঘ দেখেই মন ভরাতে হবে কলকাতাকে?

  • এদিন বিকেলে বাঁকুড়া, পুরুল্যা, পশ্চিম বর্ধমান ও বীরভূমের আকাশে তৈরি হয় বজ্রগর্ভ মেঘ। প্রবল ঝড়ের পর শুরু হয় বৃষ্টি। দিন বৃষ্টি হয়েছে বাঁকুড়া, বড়জোড়া, গঙ্গাজলঘাঁটি, দুর্গাপুর, রানিগঞ্জ, আসানসোলে।

বৃহস্পতিবারের পর শুক্রবারও দক্ষিণবঙ্গের জেলায় জেলায় হানা দিল কালবৈশাখী। এদিনও বেলা গড়াতে পশ্চিমের জেলাগুলির আকাশে বজ্রগর্ভ মেঘ তৈরি হয়। তার পর প্রবল বৃষ্টি নামে বিস্তীর্ণ এলাকায়। সন্ধে নামলা আরও কিছু জেলায় ঝড়বৃষ্টি হতে পারে বলে পূর্বাভাস দিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা।

এদিন বিকেলে বাঁকুড়া, পুরুল্যা, পশ্চিম বর্ধমান ও বীরভূমের আকাশে তৈরি হয় বজ্রগর্ভ মেঘ। প্রবল ঝড়ের পর শুরু হয় বৃষ্টি। দিন বৃষ্টি হয়েছে বাঁকুড়া, বড়জোড়া, গঙ্গাজলঘাঁটি, দুর্গাপুর, রানিগঞ্জ, আসানসোলে। এছাড়া প্রায় গোটা বীরভূম জেলায় বৃষ্টি হয়েছে। বৃষ্টিতে ভিজেছে সিউড়ি, বোলপুর, সাঁইথিয়া, আমোদপুর, নলহাটি।

বৃষ্টি শুরু হয়েছে মুর্শিদাবাদের একাংশেও। সাগরদিঘি, জঙ্গিপুর, ধূলিয়ানেও ঝড়বৃষ্টি হচ্ছে। এর মধ্যে বেশ কিছু জায়গা থেকে শিলাবৃষ্টির খবর পাওয়া গিয়েছে।

কিছুক্ষণের মধ্যে মুর্শিদাবাদ জেলার বাকি অংশেও কালবৈশাখীর সম্ভাবনা রয়েছে। সন্ধের পর ঝড়বৃষ্টি হতে পারে পূর্ব বর্ধমান ও হুগলিতে।

এদিনও রাজ্যের একাধিক জেলায় চলেছে তাপপ্রবাহ। পূর্বাভাস অনুসারে ১ মে-র আগে পরিস্থিতির উন্নতির হওয়ার সম্ভাবনা কম। তবে পশ্চিমের জেলাগুলিতে লাগাতার বৃষ্টির পরেও যে ভাবে তাপমাত্রা নিয়মিত ৪০ ডিগ্রি পার করছে তাতে আপাতত গরমের হাত থেকে রেহাই পাওয়ার সম্ভাবনা কম।

 

বন্ধ করুন