বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > দেবাঞ্জনকাণ্ডে গ্রেফতার তার আরও ১ সহযোগী
ভুয়ো IAS দেবাঞ্জন দেব।
ভুয়ো IAS দেবাঞ্জন দেব।

দেবাঞ্জনকাণ্ডে গ্রেফতার তার আরও ১ সহযোগী

  • শুক্রবার সেন্ট্রাল মেট্রো স্টেশনের কাছ থেকে তাঁকে গ্রেফতার করে SIT. তদন্তকারীদের দাবি, দেবাঞ্জন যে ভুয়ো টিকা দিচ্ছেন তা জানতেন ইন্দ্রজিৎ। তিনিই দেবাঞ্জনকে অধ্যক্ষের কাছে নিয়ে যান।

দেবাঞ্জনকাণ্ডে গ্রেফতার হলেন প্রতারকের আরও এক সহযোগী। ইন্দ্রজিৎ সাউ নামে ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে আমহার্স্ট স্ট্রিটের সিটি কলেজে ভুয়ো টিকাকরণ শিবির আয়োজনের অভিযোগ রয়েছে। তিনিই দেবাঞ্জনকে ওই ক্যাম্পে নিয়ে যান বলে জানিয়েছেন কলেজের অধ্যক্ষ।

গত ১৮ জুন থেকে কলকাতার সিটি কলেজে ভুয়ো টিকাকরণ শিবিরের আয়োজন করে দেবাঞ্জন। এখনো পর্যন্ত পাওয়া তথ্য অনুসারে সেটাই ছিল দেবাঞ্জনের আয়োজিত প্রথম ভুয়ো টিকাকরণ ক্যাম্প। তাতে প্রায় ১০০ জনকে টিকা দেওয়া হয়। কলেজের অধ্যক্ষ শীতলপ্রসাদ চট্টোপাধ্যায় বলেন, ‘শিবির আয়োজনের জন্য তাঁর সঙ্গে দেবাঞ্জনের যোগাযোগ করিয়ে দেন কলেজেরই প্রাক্তন ছাত্র ইন্দ্রজিৎ।’

শুক্রবার সেন্ট্রাল মেট্রো স্টেশনের কাছ থেকে তাঁকে গ্রেফতার করে SIT. তদন্তকারীদের দাবি, দেবাঞ্জন যে ভুয়ো টিকা দিচ্ছেন তা জানতেন ইন্দ্রজিৎ। তিনিই দেবাঞ্জনকে অধ্যক্ষের কাছে নিয়ে যান। অধ্যক্ষকে প্রচুর মাস্ক ও স্যানিটাইজার দেন দেবাঞ্জন। এর প নিজেকে কলকাতা পুরসভার যুগ্ম কমিশনার বলে দাবি করেন। তাতে আস্থা আরও বাড়ে অধ্যক্ষের। যদিও দেবাঞ্জন ধরা পড়ার পর নিজেকে প্রতারিত বলে দাবি করতে শুরু করে ইন্দ্রজিৎ।

ইন্দ্রজিতের দাবি ছিল, দেবাঞ্জন তাঁর সঙ্গেও প্রতারণা করেছে। ভুয়ো নিয়োগপত্র ও আইকার্ড দিয়ে তাঁকে কলকাতা পুরসভার হেড ক্লার্ক পদে নিয়োগ করেছিল দেবাঞ্জন। তবে জেরায় গোয়েন্দারা জানতে পেরেছেন, ভুয়ো টিকাকরণের পুরো বিষয়টিই জানতেন তিনি।

বন্ধ করুন