বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ওপেন বুক পদ্ধতিতে পরীক্ষার প্রস্তাব যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে
 যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে।

ওপেন বুক পদ্ধতিতে পরীক্ষার প্রস্তাব যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে

৮ এপ্রিলের মধ্যে অন্যান্য বিভাগের মতামত জানতে চাওয়া হয়েছে।

‌ওপেন বুক পদ্ধতিতে পরীক্ষার প্রস্তাব দিল যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের দুটি বিভাগ। ইতিমধ্যে প্রস্তাবটি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের কাছে এসেছে। অন্যান্য বিভাগের কাছ থেকে মতামত জানতে চেয়েছে কর্তৃপক্ষ।

গত বুধবার যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে ১৫টি বিভাগের মধ্যে পরীক্ষা বিষয়ক বৈঠক হয়। সেই বৈঠকে বিশ্ববিদ্যালয়ের দুটি বিভাগ অফলাইনে ওপেন বুক সিস্টেমে পরীক্ষা নেওয়ার প্রস্তাব দেয়। প্রতিটি পেপার তিন ঘণ্টার পরিবর্তে ৪ ঘণ্টা পরীক্ষা নেওয়ার প্রস্তাব দেওয়া হয়। সেইসঙ্গে লিখিত পরীক্ষা ১০০ নম্বরের পরিবর্তে ৭০ নম্বরে করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। প্রস্তাবে বলা হয়েছে, বই, নোটস ও পিডিএফের প্রিন্ট নিয়ে পরীক্ষায় বসা যাবে। তবে মোবাইল বা ট্যাবের মতো কোনও ইলেকট্রনিক্স গ্যাজেট ব্যবহার করা যাবে না। দুটি বিভাগের দেওয়া এই প্রস্তাব অন্যান্য বিভাগকেও পাঠিয়ে দেওয়া হয়। আগামী ৮ এপ্রিলের মধ্যে অন্যান্য বিভাগের মতামত জানতে চাওয়া হয়েছে।

দীর্ঘদিন ধরেই যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের পড়ুয়াদের একটি অংশ অফলাইনের বদলে অনলাইনে পরীক্ষা নেওয়ার দাবি জানিয়ে আসছিল। পড়ুয়াদের এই বিক্ষোভের মধ্যে পড়ে অফলাইনে ওপেন বুক সিস্টেমের মাধ্যমে পরীক্ষা নেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ডিনের তরফে। ডিনের তরফে এই ধরনের প্রস্তাব আসায় হতবাক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক মহলের একাংশ। তাঁদের মতে, ওপেন বুক সিস্টেম একটি স্বীকৃত পদ্ধতি ঠিকই। কিন্তু এর জন্য কোর্স, ক্যারিকুলাম ও পাঠদান পদ্ধতি সেই মতো সাজানো প্রয়োজন। আগে থেকে এই ধরনের সিদ্ধান্ত নিয়ে সেমিস্টার শুরু করতে হয়। কিন্তু এই ধরনের কিছুই হয়নি।

বন্ধ করুন