বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > পার্থর নাম করে JU-র বাংলা বিভাগের প্রধানকে শাসিয়ে আসার অভিযোগ মোনালিসার বিরুদ্ধে
অধ্যাপিকা মোনালিসা দাস।

পার্থর নাম করে JU-র বাংলা বিভাগের প্রধানকে শাসিয়ে আসার অভিযোগ মোনালিসার বিরুদ্ধে

  • যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা গিয়েছে, মাসকয়েক আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগে অধ্যাপনার সুযোগ চেয়ে আবেদন করেন মোনালিসা। কিন্তু যোগ্যতায় উত্তীর্ণ না হওয়ায় তাঁর আবেদন গ্রাহ্য হয়নি।

পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের নাম করে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের প্রধানকে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠল মন্ত্রী ঘনিষ্ঠ অধ্যাপিকা মোনালিসা দাসের বিরুদ্ধে। মাস কয়েক আগে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগে অধ্যাপনার সুযোগ চেয়ে আবেদন করেছিলেন মোনালিসা। সেই আবেদন গ্রাহ্য না হওয়ায় তিনি পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের নাম করে বাংলা বিভাগের প্রধানকে হুমকি দেন বলে অভিযোগ।

পার্থ চট্টোপাধ্যায় ঘনিষ্ঠ অভিনেত্রী অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের বাড়ি থেকে প্রায় ২২ কোটি টাকা উদ্ধারের পর বারবার উঠে আসছে মন্ত্রীর ঘনিষ্ঠ আরেক মহিলা মোনালিসা দাসের নাম। আসানসোলের কাজি নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলার অধ্যাপিকা মোনালিসা। তাঁর বাড়ি নদিয়ার পারয়াডাঙায়। ব্যক্তিগত জীবনে বিবাহবিচ্ছিন্ন তিনি। আসানসোলে বাড়ি ভাড়া নিয়ে থাকেন মোনালিসা। অভিযোগ, যোগ্যতা না থাকলেও পার্থবাবুর বদান্যতায় অধ্যাপনার চাকরি পেয়েছেন তিনি। এই মোনালিসার নামে শান্তিনিকেতনে ১০টি বাড়ি রয়েছে বলে সূত্রের খবর। তবে সেই দাবি অস্বীকার করেছেন অধ্যাপিকা।

যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা গিয়েছে, মাসকয়েক আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগে অধ্যাপনার সুযোগ চেয়ে আবেদন করেন মোনালিসা। কিন্তু যোগ্যতায় উত্তীর্ণ না হওয়ায় তাঁর আবেদন গ্রাহ্য হয়নি। অভিযোগ, এর পর পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের নাম নিয়ে বাংলা বিভাগের বিভাগীয় প্রধানকে হুমকি দেন মোনালিসা।

যদিও মোনালিসার দাবি, পার্থবাবুর সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক অভিভাবক ও শিক্ষিকার। এমনকী ‘আমি এখনো সততার জায়গাতেই আছি’ বলে সংবাদমাধ্যমে দাবি করেছেন অর্পিতা।

 

বন্ধ করুন