বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > মেলেনি প্রধানমন্ত্রী–রেলমন্ত্রীর সময়, শিয়ালদহ মেট্রো চালু নিয়ে অনিশ্চয়তা
মেট্রোর শিয়ালদহ স্টেশন।
মেট্রোর শিয়ালদহ স্টেশন।

মেলেনি প্রধানমন্ত্রী–রেলমন্ত্রীর সময়, শিয়ালদহ মেট্রো চালু নিয়ে অনিশ্চয়তা

  • নোয়াপাড়া থেকে দক্ষিণেশ্বর এই বর্ধিত রুটের ক্ষেত্রেও একই ঘটনা ঘটেছিল। একুশের নির্বাচনের প্রায় দু’মাস পর খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী সশরীরে এসে এই প্রকল্পের সূচনা করেছিলেন।

হয়রানি আরও দীর্ঘায়িত হতে চলেছে সাধারণ মানুষের। সৌজন্যে শিয়ালদহ মেট্রো। কারণ একমাস আগে ফুলবাগান থেকে শিয়ালদহ বর্ধিত রুটে মেট্রো চালানোর অনুমতি মিললেও যাত্রীদের জন্য এখনও খুলছে না শিয়ালদহ মেট্রো স্টেশন। প্রধানমন্ত্রী বা রেলমন্ত্রী কার হাতে নবনির্মিত মেট্রোর উদ্বোধন হবে তা এখনও নিশ্চিত নয়। যার জেরে হাজার হাজার যাত্রীদের ভোগান্তি বেড়েই চলেছে।

মেট্রো রেল কী বলছে?‌ এই বিষয়ে তাঁরা কোনও মন্তব্য করতে নারাজ। শুধু বলা হচ্ছে শীঘ্রই হবে। তাই শিয়ালদহ মেট্রো স্টেশন কবে খুলবে?‌ তা এখন অনিশ্চিত। মেট্রোর রেল সূত্রে খবর, নোয়াপাড়া থেকে দক্ষিণেশ্বর এই বর্ধিত রুটের ক্ষেত্রেও একই ঘটনা ঘটেছিল। একুশের নির্বাচনের প্রায় দু’মাস পর খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী সশরীরে এসে এই প্রকল্পের সূচনা করেছিলেন।

কী অবস্থা এই প্রকল্পের?‌ কলকাতা মেট্রো রেল কর্পোরেশন লিমিটেড (কেএমআরসিএল) সূত্রে খবর, মেট্রো চালাতে পুরোপুরি তৈরি রয়েছে। কিন্তু দিল্লি থেকে প্রধানমন্ত্রী বা রেলমন্ত্রী উদ্বোধনে না আসায় শিয়ালদহ চালু করা যাচ্ছে না। রাজনীতির জাঁতাকলে পড়ে ইস্ট–ওয়েস্ট মেট্রোয় জটিলতা তৈরি হয়েছে। তাই এখনই কোনও তারিখ নির্দিষ্ট করে বলা যাচ্ছে না।

উল্লেখ্য, আগে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আপত্তিতে রুট পরিবর্তন করতে বাধ্য হয়েছে রেল। যার জেরে প্রকল্প ব্যয় বেড়েছে বহুগুণ। নতুন রুটে মেট্রো সুড়ঙ্গ করতে গিয়ে বউবাজার বিপর্যয় ঘটেছে। ইস্ট–ওয়েস্ট মেট্রোর প্রকল্প কবে সম্পূর্ণ হবে তা নিয়েও রয়েছে সংশয়। তাই এই সুবিধা পাচ্ছেন না যাত্রীরা। আবার এই শিয়ালদহ মেট্রো চালু নিয়েও ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে।

বন্ধ করুন