বাঁ দিকে ত্রাণ বিলি করছেন মুখ্যমন্ত্রী, বাঁ দিকে ত্রাণ বণ্টনে সব্যসাচী দত্ত।
বাঁ দিকে ত্রাণ বিলি করছেন মুখ্যমন্ত্রী, বাঁ দিকে ত্রাণ বণ্টনে সব্যসাচী দত্ত।

'মুখ্যমন্ত্রীর অনুপ্রেরণায়' ত্রাণ দিতে বেরনোয় সব্যসাচীকে গ্রেফতারের হুমকি

  • মুখ্যমন্ত্রীর অনুপ্রেরণায় পথে নেমেছি, বললেন সব্যসাচী

দু’দিন আগে কলকাতার রাস্তায় নেমে নিজে হাতে ত্রাণ বিলি করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আলিপুরে জেলা শাসকের দফতরের সামনে গোটা পক্রিয়ার তদাকরি করেছিলেন পুলিশ আধিকারিকরা। একই পথে মঙ্গলবার বিধাননগরের রাস্তায় ত্রাণ বিলি করতে বেরনোয় পুলিশের হুমকির মুখে বিজেপি নেতা সব্যসাচী দত্ত। আইন ভাঙায় তাঁকে গ্রেফতারির হুমকি দেন পুলিশ আধিকারিকরা। প্রশ্ন উঠছে, তবে কি মুখ্যমন্ত্রীর জন্য আইন আলাদা?

করোনাভাইরাসের জেরে লকডাউন শুরু হওয়ার পর থেকেই গরিব খেটে খাওয়া মানুষের মধ্যে ত্রাণ বিলি করছেন নিউটাউনের বিধায়ক সব্যসাচী দত্ত। মঙ্গলবার তাঁর বিধাননগরের বাড়িতে পৌঁছন কমিশনারেটের পুলিশ আধিকারিকরা। জানান, রাস্তায় বেরিয়ে আইন ভাঙছেন তিনি। ফের রাস্তায় বেরোলে গ্রেফতার করা হবে তাঁকে।

পুলিশের হুঁশিয়ারিতে যদিও বিব্রত নন সব্যসাচীবাবু। তিনি জানিয়েছেন, ত্রাণ বিলি বন্ধ করবেন না তিনি। বলেন, ‘পুলিশের কথা পুলিশ বলে গিয়েছে। আমার কাজ আমি করে যাব।’

এদিন তৃণমূলের বিরুদ্ধে ত্রাণ নিয়ে রাজনীতি করার অভিযোগ তুলেছেন সব্যসাচীবাবু। তিনি বলেন, ‘তৃণমূলের নেতা-মন্ত্রী সবাই ত্রাণ বিলি করে বেড়াচ্ছেন, এমনকী মুখ্যমন্ত্রীও রাস্তায় নেমে ত্রাণ বিলি করেছেন, তখন পুলিশের আইন মনে পড়ে না। বিজেপি ত্রাণ বিলি করতে বেরোলেই ওদের যত সমস্যা। কোথায় মানুষ এই বিপদের সময় খেয়ে পরে বেঁচে থাকতে পারবে শাসকদল হিসাবে তৃণমূল তা দেখবে, তা – না এখনো রাজনীতি করছে। বিজেপিকে ওদের এত ভয়।’ মুখ্যমন্ত্রীর অনুপ্রেরণায় গরিব মানুষকে সাহায্য করতে পথে নেমেছি। পুলিশের অনুমতি নিতে হবে না কি? প্রশ্ন সব্যসাচীবাবুর।

বন্ধ করুন