বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > Pranam members: 'প্রণাম'-এর সদস্যরা পাবেন QR কোড যুক্ত কার্ড, স্ক্যান করলেই জানা যাবে রোগের বিবরণ

Pranam members: 'প্রণাম'-এর সদস্যরা পাবেন QR কোড যুক্ত কার্ড, স্ক্যান করলেই জানা যাবে রোগের বিবরণ

প্রণামের সদস্যদের হেলথ কার্ড দেবে কলকাতা পুলিশ। 

কার্ডে কোনও তথ্য আপডেট করার প্রয়োজন হলে অর্থাৎ সদস্যের নতুন শারীরিক সমস্যা বা রোগ ধরা পড়লে বা নতুন ওষুধ চালু হলে তা কল সেন্টারের মাধ্যমে অনলাইনে করা হবে। এই কার্ড দেওয়ার জন্য প্রণামের সদস্যদের কাছ থেকে আবেদন নেওয়া হবে।

প্রণামের সদস্যদের আরও ভালোভাবে পরিষেবা দেওয়ার জন্য ইতিমধ্যেই প্রণাম অ্যাপ এবং প্রণাম কল সেন্টার চালু করেছে কলকাতা পুলিশ। এবার প্রণামের সদস্যদের আরও ভালো পরিষেবা দিতে মেডিক্যাল প্রিভিলেজ কার্ড (এমপিসি) চালু করল কলকাতা পুলিশ। যার মাধ্যমে প্রণামের সদস্যদের জন্য কিউআর কোড যুক্ত একটি স্মার্ট কার্ড দেওয়া হবে।

এই কার্ডে প্রতিটি প্রণামের সদস্যের স্বাস্থ্যের সমস্ত বিবরণ দেওয়া থাকবে। যার ফলে কিউআর কোডটি স্ক্যান করলেই সংশ্লিষ্ট সদস্যের বর্তমানে কী শারীরিক সমস্যা বা রোগ রয়েছে? আগে কী সমস্যা ছিল তা সহজেই জানা যাবে। মঙ্গলবার পুলিশ এই প্রকল্প চালু করেছে। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, কার্ডে কোনও তথ্য আপডেট করার প্রয়োজন হলে অর্থাৎ সদস্যের নতুন শারীরিক সমস্যা বা রোগ ধরা পড়লে বা নতুন ওষুধ চালু হলে তা কল সেন্টারের মাধ্যমে অনলাইনে করা হবে। এই কার্ড দেওয়ার জন্য প্রণামের সদস্যদের কাছ থেকে আবেদন নেওয়া হবে। পুলিশ জানিয়েছে, আবেদন গ্রহণ করার পর স্বাধীনতা দিবসে এই কিউআর যুক্ত কার্ড দেওয়া হবে প্রণামের সদস্যের। পুলিশের এক আধিকারিক জানিয়েছেন, ‘শীঘ্রই এই বিষয়ে প্রণামের সদস্যদের কাছ থেকে আবেদন গ্রহণ শুরু করব।’

এছাড়াও, সমস্ত থানার ভারপ্রাপ্ত অফিসাররা প্রতিটি প্রণাম সদস্যের বাড়ির কাছে একটি ওষুধের দোকান এবং অন্যান্য দোকানগুলি শনাক্ত করবেন। এই সমস্ত দোকান থেকে প্রয়োজনের সময় ওষুধ বা অন্যান্য প্রয়োজনীয় জিনিস নিতে পারবেন প্রণামের সদস্যরা। এনিয়ে দোকানের মালিকদের সঙ্গে কথা বলবে কলকাতা পুলিশ।

অন্যদিকে, প্রণাম কল সেন্টারে আগামী দিনে লোকবল বাড়াতে চলেছে পুলিশ। বর্তমানে এই কল সেন্টারে ৬ জন কর্মরত রয়েছেন। আগামী দিনে সংখ্যাটা আরও বাড়ানো হবে বলে এক আধিকারিক জানিয়েছেন। উল্লেখ্য, এই হেল্পলাইন নম্বরটি হল–৯৪৭৭৯৫৫৫৫৫। এই নম্বরে ফোন করে প্রণামের সদস্যরা যে কোনও সাহায্যের জন্য আবেদন জানাতে পারছেন। এই কল সেন্টারে থাকা সদস্যরা সমস্ত ইনকামিং কল রিসিভ এবং এটেন্ড করার পাশাপাশি প্রতিদিন ৩০০টি আউটগোয়িং কল প্রণামের সদস্যদের করে থাকেন। সকাল ৮টা থেকে ১১টা এবং বিকাল ৪টে এবং রাত ৮টার শিফটে বর্তমানে তারা কাজ করছেন বলে পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে।

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

বাংলার মুখ খবর
বন্ধ করুন

Latest News

জল্পনায় সিলমোহর, বাবা-মা হতে চলেছেন দীপিকা রণবীর, কবে আসছে প্রথম সন্তান? ‘BJPএবং সন্দেশখালির মহিলাদের আন্দোলনের জন্য…’, শাহজাহানের গ্রেফতারি নিয়ে সুকান্ত 'ওঁর মতো...' যখন-তখন বিতর্কিত মন্তব্য করে বসেন, তবুও জয়ার হয়ে সাফাই নভ্যার! রণজয়ের নাম ভাঙিয়ে ৭৩ লক্ষ টাকার প্রতারণা! ফ্যানেদের সতর্ক করলেন পর্দার অনিকেত কাল থেকে শুরু নতুন মাস, কেমন কাটবে এই মাসটি? সব ভালো হবে তো? রইল সব রাশির রাশিফল ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজগুলিতে প্লেসমেন্টের আকাল,তাও মোটা বেতনের চাকরি দিচ্ছে এই সংস্থা ভেঙেছিল স্বপ্ন, অবসাদে মাত্র ৩৮ বছর বয়সে নিজের প্রাণ দিলেন সফটওয়্যার সংস্থার CEO চালের দাম নিয়ন্ত্রণে রাখতে পদক্ষেপ ভারতের, খিদের জ্বালায় পুড়তে পারে বাকিদের পেট রাঁচি টেস্টে ভারতের বিরুদ্ধে সাদামাটা পারফরম্যান্স, রবিনসনকে একহাত নিলেন আথারটন ঘুরে দাঁড়াতে বাজার থেকে ৪৫ হাজার কোটি তুলবে ভোডাফোন-আইডিয়া, সবুজ সংকেত বোর্ডের

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.