বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > অবশেষে পুলিশের জালে ঘাতক বাসের চালক, তোলা হল ব্যাঙ্কশাল আদালতে
দুর্ঘটনাগ্রস্ত বাস। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)
দুর্ঘটনাগ্রস্ত বাস। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)

অবশেষে পুলিশের জালে ঘাতক বাসের চালক, তোলা হল ব্যাঙ্কশাল আদালতে

  • ঘাতক বাসটি প্রথমে একটি মোটরবাইকে ধাক্কা মারে, তারপর পাঁচিলে ধাক্কা মেরে উল্টে যায় বাসটি।

অবশেষে ধৃত রেড রোড দুর্ঘটনায় ঘাতক বাসের চালক। পুলিশ সূত্রে খবর, শনিবার রাতে ১১টা নাগাদ কামারহাটি অঞ্চল থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। ধৃতকে রবিবার ব্যাঙ্কশাল কোর্টে তোলা হবে। গ্রেফতার হওয়া চালকের নাম সৈয়দ ইবরার হোসেন। ঘাতক বাসটি প্রথমে একটি মোটরবাইকে ধাক্কা মারে, তারপর পাঁচিলে ধাক্কা মেরে উল্টে যায় বাসটি। ফোর্ট উইলিয়ামের সামনে যেখানে রেড রোড বন্ধ সেখানে আইল্যান্ড দিয়ে পার্ক স্ট্রিটের দিকে ঘুরতে গিয়েই ব্রেক ফেল করে। আর তার জেরেই হয় দুর্ঘটনা।

কীভাবে মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটল?‌ তা পুলিশি জেরার মুখে জানিয়েছে অভিযুক্ত বাসচালক। পুলিশ সূত্রে খবর, বাসটির ব্রেকে সমস্যা দেখা দিয়েছিল বলে চালক সৈয়দ ইবরার হোসেন জানিয়েছে। ব্রেক ধরতে সমস্যা হচ্ছিল মিনিবাসটির। এই পরিস্থিতিতে বাসের সামনে আসা মোটরবাইক আরোহীকে বাঁচাতে গিয়ে দুর্ঘটনা ঘটে। তার বিরুদ্ধে অনিচ্ছকৃত খুনের মামলা দায়ের করেছিল কলকাতা পুলিশ। রাতে তাকে গ্রেফতারও করা হয়। রবিবার আদালতে তুলে ধৃতকে নিজেদের হেফাজতে চাইতে পারে পুলিশ।

সেদিনের বাস দুর্ঘটনায় ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় মোটরবাইক আরোহীর। বাসের ২০–২৫ জন যাত্রীও আহত হন। তাঁদের উদ্ধার করে এসএসকেএম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। খবর পেয়ে সেদিন ঘটনাস্থলে যান কলকাতা পুলিশ কমিশনার সৌমেন মিত্র। ঘটনার পর থেকে পলাতক ছিলেন বাসের চালক। ১ জুলাই থেকে বাসের চাকা গড়িয়েছিল। সেদিনই রেড রোডে এক পুলিশ কর্মীকে পিষে দেয় হাওড়াগামী মিনিবাসটি। সেই থেকে পলাতক ছিলেন বাসচালক। অবশেষে গ্রেফতার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০৪(২) ধারায় অনিচ্ছাকৃত খুনের মামলা দায়ের করা হয়।

বন্ধ করুন