বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > School Summer Vacation Case: অসহ্য গরম কমলেও কেন স্কুলে ৪৫ দিন ছুটি? রাজ্যের রিপোর্ট তলব হাইকোর্টের
স্কুলে গ্রীষ্মকালীন ছুটি থাকা নিয়ে দায়ের করা জনস্বার্থ মামলায় রাজ্য সরকারের রিপোর্ট তলব করল কলকাতা হাইকোর্ট। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্যে পিটিআই)
স্কুলে গ্রীষ্মকালীন ছুটি থাকা নিয়ে দায়ের করা জনস্বার্থ মামলায় রাজ্য সরকারের রিপোর্ট তলব করল কলকাতা হাইকোর্ট। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্যে পিটিআই)

School Summer Vacation Case: অসহ্য গরম কমলেও কেন স্কুলে ৪৫ দিন ছুটি? রাজ্যের রিপোর্ট তলব হাইকোর্টের

  • School Summer Vacation Case: টানা কয়েকদিন অসহ্য গরমের জেরে গত ২ মে থেকে রাজ্যের স্কুলগুলিতে গ্রীষ্মকালীন ছুটি পড়ে গিয়েছে। স্কুল বন্ধ থাকবে ১৫ জুন পর্যন্ত। তারইমধ্যে রাজ্যের আবহাওয়া পালটে গিয়েছে। কমে গিয়েছে গরম। সেই পরিস্থিতিতে কলকাতা হাইকোর্টে দায়ের হয় মামলা।

অসহ্য গরম কমে গিয়েছে। আবহাওয়া অনেকটাই ভালো হয়েছে। তারপরও স্কুলে গ্রীষ্মকালীন ছুটি থাকা নিয়ে দায়ের হওয়া জনস্বার্থ মামলায় রাজ্য সরকারের রিপোর্ট তলব করল কলকাতা হাইকোর্ট।

আরও পড়ুন: Summer vacation- গরম থাক বা না থাক, বেসরকারি স্কুলেও ছুটি দিতে হবে, স্পষ্ট নির্দেশ রাজ্য সরকারের

টানা কয়েকদিন অসহ্য গরমের জেরে গত ২ মে থেকে রাজ্যের স্কুলগুলিতে গ্রীষ্মকালীন ছুটি পড়ে গিয়েছে। স্কুল বন্ধ থাকবে ১৫ জুন পর্যন্ত। কিন্তু পরবর্তীতে আবহাওয়ার অনেকটা পরিবর্তন হয়েছে। কমে গিয়েছে গরম। সেই পরিস্থিতিতে ৪৫ দিন ছুটি থাকা নিয়ে গত সপ্তাহে হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করা হয়। বঙ্গীয় প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির তরফে সেই মামলা দায়ের করা হয় হাইকোর্টে। 

মামলাকারীর দাবি, করোনাভাইরাসের জেরে এমনিতেই দীর্ঘদিন স্কুল বন্ধ ছিল। অনলাইন ক্লাস চললেও পড়ুয়ারা ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বিশেষত গ্রামের অবস্থা আরও খারাপ। সেই পরিস্থিতিতে স্কুল খোলার কয়েক মাসের মধ্যেই আবারও বন্ধ হয়ে যাওয়ায় পড়ুয়াদের পড়াশোনার উপর ব্যাপক প্রভাব পড়বে। পড়ুয়াদের বিকাশের গতি শ্লথ হয়ে যাবে বলে জনস্বার্থ মামলায় দাবি করা হয়। তুলে ধরা হয় আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাসও।

আরও পড়ুন: ‘‌মুখ্যমন্ত্রী চাইছেন বাংলার সবাই অশিক্ষিত হোন’‌, গরমের ছুটি নিয়ে তোপ দিলীপের

সেই মামলার শুনানিতে মঙ্গলবার রাজ্যের থেকে রিপোর্ট তলব করেছে হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তবের বেঞ্চ। মামলার পরবর্তী শুনানির দিনের মধ্যে হলফনামা পেশ করে সেই বিষয়টি জানাতে হবে।

বন্ধ করুন