বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > খোলনলচে পাল্টে যাচ্ছে শিয়ালদহ স্টেশনের, দ্রুত গতিতে চলছে রেলের কাজ

খোলনলচে পাল্টে যাচ্ছে শিয়ালদহ স্টেশনের, দ্রুত গতিতে চলছে রেলের কাজ

শিয়ালদহ স্টেশনে দ্রুত গতিতে কাজ এগোচ্ছে। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)

দ্রুত গতিতে কাজ এগোচ্ছে। সুতরাং ভোলবদল হচ্ছে ব্যস্ততম শিয়ালদহ স্টেশন চত্বরের।

বদলে যেতে বসেছে শিয়ালদহ স্টেশন। কারণ শিয়ালদহ মেট্রোর কাজ প্রায় শেষের মুখে। ইতিমধ্যেই মেট্রো রেলওয়ে সূত্রে খবর, স্টেশনের গেট থেকে শুরু করে পার্কিংয়ের জায়গা পর্যন্ত সবটাই সাজানোর কাজ শেষ। স্টেশন চত্বরের রাস্তাও খোলনলচে বদলে ফেলা হবে। দ্রুত গতিতে কাজ এগোচ্ছে। সুতরাং ভোলবদল হচ্ছে ব্যস্ততম শিয়ালদহ স্টেশন চত্বরের। তার জেরেই বদলে যাচ্ছে পূর্ব রেলের অন্যতম বড় স্টেশন শিয়ালদহ। হচ্ছে ঝাঁ চকচকে।

সূত্রের খবর, আগামী ছয় মাসের মধ্যেই বদলে যাবে গোটা স্টেশন চত্বর। ইস্ট–ওয়েস্ট মেট্রো প্রকল্পের স্টেশন হতে চলেছে শিয়ালদহ। এই স্টেশন ধরেই অসংখ্য যাত্রী মেট্রো ব্যবহার করবেন। যেহেতু মেট্রো স্টেশন আর রেলের স্টেশন একেবারেই পাশাপাশি উঠেছে তাই বাড়তি গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে যাত্রীদের সুবিধায়। তবে দ্রুত গতিতে কাজ চলছে স্টেশনের।

রেল সূত্রে খবর, মাটির ১৬.৫ মিটার নীচে থাকছে মেট্রোর লাইন। শিয়ালদহ স্টেশনের একদিকে ফুলবাগান মেট্রো স্টেশন, অন্যদিকে এসপ্ল্যানেড মেট্রো স্টেশন। এই বিষয়ে আইটিডি–সিইএম–এর চিফ অপারেটিং ম্যানেজার রূপক সরকার বলেন, ‘‌শিয়ালদহ ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ একটা স্টেশন হতে চলেছে। কারণ শহরতলির বিভিন্ন জায়গা থেকে মানুষ এসে মেট্রো ধরবেন। ভিড় নিয়ন্ত্রণের জন্যে চওড়া জায়গা এবং যথাযথভাবে শিয়ালদহ স্টেশনের উত্তর, মেন এবং দক্ষিণের রেল প্ল্যাটফর্মে পাঠানোর কাজ করেছি। যাতে মানুষের অসুবিধা না হয়।’‌

আবার যাত্রীদের সুবিধার জন্যে স্টেশনে থাকছে ৯টি সিঁড়ি। মেট্রো স্টেশনে ঢোকা ও বেরনোর জন্যে থাকছে একাধিক প্রান্তে সিঁড়ি। মোট ১৮টি এসক্যালেটর রাখা হচ্ছে। মোট টিকিট কাউন্টার থাকছে ২৭টি। যাতায়াতের সুবিধার জন্যে থাকছে মোট ৫টি লিফট। মোট ৩টি প্ল্যাটফর্ম থাকছে। সূত্রের খবর, চলতি বছরের অক্টোবর মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহের মধ্যেই শিয়ালদহ স্টেশনের জন্যে রেলওয়ে সেফটি কমিশনার পরিদর্শন করে যাবেন। আর পুজোর আগেই যাত্রী চলাচলের জন্যে প্রস্তুত হয়ে যাবে।

বন্ধ করুন