বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > নড্ডাকে নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ পশ্চিমবঙ্গ সরকার, শাহকে নালিশ জানিয়ে চিঠি দিলীপের
বুধবার পশ্চিমবঙ্গ সফরে আসা বিজেপি-র সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নড্ডার কনভয়ের উপরে হামলার প্রতিবাদে সরব বঙ্গ-বিজেপি নেতৃত্ব। ছবি বিজেপি-র টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে সংগৃহীত।
বুধবার পশ্চিমবঙ্গ সফরে আসা বিজেপি-র সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নড্ডার কনভয়ের উপরে হামলার প্রতিবাদে সরব বঙ্গ-বিজেপি নেতৃত্ব। ছবি বিজেপি-র টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে সংগৃহীত।

নড্ডাকে নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ পশ্চিমবঙ্গ সরকার, শাহকে নালিশ জানিয়ে চিঠি দিলীপের

  • নড্ডার অভিযোগ, কনভয়ের একটি গাড়িও হামলা থেকে ছাড়া পায়নি। বুলেটপ্রুফ গাড়িতে ছিলাম বলে বেঁচে গিয়েছি।

পশ্চিমবঙ্গ সফরে এসে আক্রমণের মুখে পড়ে তৃণমূল সরকারের উপরে প্রশাসনিক ব্যর্থতার দায় চাপালেন বিজেপি-র সর্বভারতীয় সভাপতি জগৎ প্রকাশ নড্ডা। সমালোচনায় মুখর হলেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় ও দলের রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষও।

বুধবারের ঘটনার প্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার দক্ষিণ ২৪ পরগনায় বিজেপির জনসভায় নড্ডা অভিযোগ করেন, ‘কনভয়ের একটি গাড়িও হামলা থেকে ছাড়া পায়নি। বুলেটপ্রুফ গাড়িতে ছিলাম বলে বেঁচে গিয়েছি। পশ্চিমবঙ্গে এই অরাজকতা ও অসহিষ্ণুতার অবসান ঘটাতে হবে।’

এ দিন বিজেপি-র কেন্দ্রীয় নেতা কৈলাস বিজয়বর্গীয়র গাড়ি লক্ষ্য করেও পাথর ছোড়ে বিক্ষোভকারীরা। তার জেরে নেতার গাড়ির উইন্ডশিল্ড ও জানলার কাচ চুরমার হয়। সাম্প্রতিক ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়ে বাংলার রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় টুইট করে রাজ্যে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন। রাজ্যপালের অভিযোগ, বুধবার সকালে পুলিশ কর্তাদের সতর্ক করলে তাঁকে আশ্বাস দেওয়া সত্ত্বেও নড্ডার কনভয়ের উপর হামলা রুখতে ব্যর্থ হয়েছে প্রশাসন।

গতকালের (হেস্টিংসের) ঘটনায় তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করে বিজেপি-র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বাংলায় আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতির জন্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বাধীন তৃণমূল সরকারকে কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছেন। বিজেপি সভাপতির কনভয়ে হামলার বিষয়টি তিনি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ এবং রাজ্য প্রশাসনকে চিঠি লিখে জানিয়েছেন বলে দাবি দিলীপের।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে লেখা চিঠিতে রাজ্য বিজেপি নেতৃত্বের তরফেজানানো হয়েছে, ‘১০ ডিসেম্বর জে পি নড্ডার অনুষ্ঠানে যাতে যথোপযুক্ত নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হয়, সেই বিষয়ে রাজ্য স্বরাষ্ট্র সচিবকে প্রয়োজনীয় নির্দেশ জারি করতে আপনাকে অনুরোধ জানাচ্ছি। বিষয়টি ৯ ডিসেম্বরের ঘটনাপঞ্জীর প্রেক্ষিতে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।’

দিলীপ ঘোষের অভিযোগ, বুধবার নড্ডার কর্মসূচি ঘিরে নিরাপত্তা ব্যবস্থায় যথেষ্ট ফাঁক থেকে গিয়েছে। বিশেষ করে রাজ্য পুলিশের বিরুদ্ধে তিনি উদ্দেশ্যপ্রণোদিত কর্তব্যে গাফিলতির অভিযোগ তুলেছেন। 

রাজ্য বিজেপি সভাপতি বলেন, কলকাতার হেস্টিংসে আমাদের দলীয় কার্যালয়ে লাঠি, বাঁশ নিয়ে কালো পতাকা হাতে হামলা চালায় প্রায় দুশো লোকের ভিড়। কয়েক জন দফতরের বাইরে রাখা গাড়ির উপর উঠে স্লোগান দিতে থাকে। পুলিশ তাদের বাধা দেওয়ার কোন চেষ্টাই করেনি, বরং নড্ডাজির গাড়ির কাছে আসতে দিয়েছে।

দিলীপ ঘোষের দাবি, দিনভর বিজেপি সভাপতির কর্মসূচিতে কলকাতা পুলিশের দেওয়া পাইলট কার মসৃণ ভাবে চলাফেরায় ব্যর্থ হয়। একাধিক বার ট্রাফিক সিগনালে তাঁদের কনভয় দাঁড় করানো হয় বলেও অভিযোগ জানিয়েছেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি।

তাঁর আরও অভিযোগ, পশ্চিমবঙ্গ সরকারের তরফে সরকারি নিয়মে আইন-শৃঙ্খলা বজায় রাখার বিষয়ে কোনও রকম নিশ্চয়তা দেখা যায়নি যা সিআরপিএফ জেড ক্যাটেগরিভুক্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থায় শ্রী জে পি নড্ডার প্রাপ্য।

শুধু তাই নয় বৃহস্পতিবার বিজেপি সভাপতির ডায়মন্ড হারবার সফরেও তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা হামলা চালাতে পারে বলেও আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন দিলীপ ঘোষ। এই বিষয়ে সতর্ক করা সত্ত্বেও পশ্চিমবঙ্গ পুলিশ নিরাপত্তার ব্যাপারে কোনও নিশ্চয়তা দিতে পারছে না বলে অভিযোগ জানিয়েছেন তিনি। 

বন্ধ করুন