বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ইচ্ছা মতো মেধাতালিকায় রদবদল করেছেন, বিস্ফোরক অভিযোগ শান্তিপ্রসাদের বিরুদ্ধে
শান্তিপ্রসাদ সিনহা। ফাইল ছবি

ইচ্ছা মতো মেধাতালিকায় রদবদল করেছেন, বিস্ফোরক অভিযোগ শান্তিপ্রসাদের বিরুদ্ধে

  • সিবিআইয়ের তরফে জানানো হয়েছে, কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি সুব্রত তালুকদার নিযুক্ত বিচারপতি রঞ্জিতকুমার বাগ কমিটির ১,৫০০ পাতার রিপোর্টে গ্রেফতার হওয়া উপদেষ্টা কমিটির ২ সদস্যের কাণ্ডকারখানা বিস্তারে জানানো হয়েছে।

SSC নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় গ্রেফতার উপদেষ্টা কমিটির প্রাক্তন আহ্বায়ক শান্তিপ্রসাদ সিনহা ও সদস্য অশোক সাহার বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ আনল সিবিআই। সিবিআইয়ের দাবি, নিয়ম কানুনের পরোয়া না করে মেধাতালিকায় নীচে থাকা নাম ওপরে নিয়ে আসতেন শান্তিপ্রসাদ সিনহা। এই কাজে তাঁকে সাহায্য করতেন অশোক সাহা।

সিবিআইয়ের তরফে জানানো হয়েছে, কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি সুব্রত তালুকদার নিযুক্ত বিচারপতি রঞ্জিতকুমার বাগ কমিটির ১,৫০০ পাতার রিপোর্টে গ্রেফতার হওয়া উপদেষ্টা কমিটির ২ সদস্যের কাণ্ডকারখানা বিস্তারে জানানো হয়েছে। রিপোর্টে বলা হয়েছে, এসএসসির মেধাতালিকায় ইচ্ছা মতো রদবদল করতেন এসপি সিনহা। কখনও দশ নম্বরে থাকা নাম ৩ বা ৪ নম্বরে তুলে আনতেন তিনি। তার পর সেই সুপারিশপত্র তুলে দিতেন মধ্যশিক্ষা পর্ষদের সভাপতি কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায়ের হাতে। 

রিপোর্টে বলা হয়েছে, কল্যাণময় সেই সুপারিশপত্রের ভিত্তিতে নিজের অফিসের কর্মীদের দিয়ে নিয়োগপত্র বানাতেন। তার পর সেই নিয়োগপত্র তুলে দিলেন এসপি সিনহার হাতে। এর পর তিনি SSC দফতরের পাশের একটি ভবনে গিয়ে সেই নিয়োগপত্র তুলে দিতেন অযোগ্য চাকরিপ্রার্থীর হাতে। রিপোর্টে বলা হয়েছে, চাকরির জন্য আবেদন করেননি এমন প্রার্থীকেও চাকরি দিয়েছেন এসপি সিনহা।

এসপি সিনহার গ্রেফতারির পর কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায়সহ উপদেষ্টা কমিটির অন্য সদস্যদের ওপর চাপ বাড়ল বলেই মনে করছেন আইনজ্ঞরা। এই তালিকায় রয়েছেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের প্রাক্তন আপ্তসহায়ক সুদীপ্ত আচার্য।

 

বন্ধ করুন