বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > বিধানসভায় কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষীদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি স্পিকারের
বিধানসভায় কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষীদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি স্পিকারের। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
বিধানসভায় কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষীদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি স্পিকারের। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)

বিধানসভায় কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষীদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি স্পিকারের

গত ৭ মে রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী বিধানসভায় শপথ নিতে এলে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষীদের সঙ্গে সংবাদমাধ্যমের প্রতিনিধির বচসা বাঁধে।

কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষীদের বিধানসভায় ঢোকার অনুমতি দিলেন না অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়। সম্প্রতি বাজেট অধিবেশন সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করার জন্য বিজনেস অ্যাডভাইসরি কমিটির বৈঠক হয়। সেই বৈঠকে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষী বিধানসভায় প্রবেশের অনুমতি চায় বিজেপির পরিষদীয় দল। কিন্তু বিধানসভার অধ্যক্ষ তা দিতে রাজি হননি।

এই প্রসঙ্গে বিধানসভার অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, করোনা পরিস্থিতিতে অধিবেশনের সময়ে অতিথিদের যাতায়াতের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। তাই এমন পরিস্থিতিতে বিজেপির পরিষদীয় দলের দাবি মানা সম্ভব হচ্ছে না। পরিষদীয় মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানান, 'কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষীদের বিধানসভায় ঢুকতে দেওয়ার আবেদন করেছিল বিজেপি পরিষদীয় দল। কাউকে আপাতত ঢুকতে দেওয়া হবে না। ভিজিটার্স কাউকে ঢুকতে দেওয়া হবে না। করোনা বিধি মেনে এই অধিবেশন চলবে। তাই এই নিষেধাজ্ঞা জারি থাকছে। রাজ্যের নিরাপত্তারক্ষীদের কি লোকসভায় নিয়ে যাওয়া হয়?‌ বাইরে কোথাও তাঁদের বসার ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে।'

গত ৭ মে রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী বিধানসভায় শপথ নিতে এলে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তারক্ষীদের সঙ্গে সংবাদমাধ্যমের প্রতিনিধির বচসা শুরু হয়েছিল। তারপরই বিজ্ঞপ্তি জারি করে কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানদের বিধানসভায় প্রবেশের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। আগামী ২ জুলাই থেকে বিধানসভায় বাজেট অধিবেশন শুরু হচ্ছে। অধিবেশন চলাকালীন যাতে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া হয়, সেই আবেদনই জানিয়েছিল বিজেপির পরিষদীয় দল। তবে বিজেপির সেই আবেদনে সাড়া দেওয়া হল না।

দেওয়া হল না।

বন্ধ করুন