বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > মহালয়াতে বোধন শোভন-রত্নার নয়া উদ্যোগের
রত্না চট্টোপাধ্যায় - বেহালা পূর্ব, তৃণমূল কংগ্রেস। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)
রত্না চট্টোপাধ্যায় - বেহালা পূর্ব, তৃণমূল কংগ্রেস। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)

মহালয়াতে বোধন শোভন-রত্নার নয়া উদ্যোগের

  • নিজের করা পোস্টটি সম্পর্কে নিজেই খোলসা করেছেন শোভন। এই প্রসঙ্গে তিনি জানান, ‘‌ঘরে ঘরে স্যানিটারি প্যাড নামে যে কর্মসূচি রয়েছে, সেই বিষয়েই রত্নাদির সঙ্গে দেখা করতে এসেছিলাম।

‌সম্প্রতি একটি ফেসবুক পোস্ট ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। সেই পোস্টে লেখা, ‘‌হাত মেলালেন শোভন–রত্না।’‌ সেই সঙ্গে বেহালা পূর্বের বিধায়ক রত্না চট্টোপাধ্যায় ও আরও কয়েকজনের ছবিও পোস্ট করা হয়। এই পোস্টের সঙ্গে সঙ্গে সকলের মনে কৌতুহল দানা বাঁধে, তাহলে কী এই শোভন বলতে কলকাতার প্রাক্তন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়কে বলা হচ্ছে। কিন্তু পরে জানা গেল, এই শোভন আসলে কলকাতার প্যাডম্যান শোভন মুখোপাধ্যায়। তিনিই এই পোস্টটি করেছেন।

নিজের করা পোস্টটি সম্পর্কে নিজেই খোলসা করেছেন শোভন। এই প্রসঙ্গে তিনি জানান, ‘‌ঘরে ঘরে স্যানিটারি প্যাড নামে যে কর্মসূচি রয়েছে, সেই বিষয়েই রত্নাদির সঙ্গে দেখা করতে এসেছিলাম। রত্নাদির বিধানসভা এলাকায় এই কর্মসূচি শুরু হবে। সেই কারণেই তাঁর বাড়ি গিয়েছিলাম। মহালয়ার দিন অর্থাৎ ৬ অক্টোবর এই প্রকল্পের উদ্বোধন হবে। রত্নাদির হাত ধরেই বেহালায় এই উদ্যোগ শুরু হচ্ছে।’‌ এই ধরনের ক্যাপশান পোস্ট করা নিয়ে কলকাতার প্যাডম্যান জানান, ‘‌এই ধরনের ক্যাপশন ইচ্ছাকৃতভাবেই করা হয়েছে। রত্নাদিকে বলেই আমি এই ক্যাপশান লিখেছি। উনি বিষয়টি মজার ছলেই নিয়েছেন। ক্যাপশনের সঙ্গে লেখা হয়েছে, এই শোভন রত্নাদির ভাই।’‌

উল্লেখ্য, শহরে শৌচালয়গুলিতে স্যানিটারি ভেন্ডিং মেশিন বসানো থেকে শুরু করে প্রত্যন্ত এলাকায় ঋতুস্রাব নিয়ে সচেতন করার বিষয়ে বিশেষ উদ্যোগ নিয়েছিলেন শোভন মুখোপাধ্যায়। তিনি কলকাতার প্যাডম্যান বলেই পরিচিত। এবারে মহিলাদের মধ্যে স্যানিটারি প্যাড নিয়ে সচেতনতা বাড়ানোর জন্য তাঁর এই উদ্যোগ অনেকের কাছে প্রশংসার পাত্র হয়ে উঠেছে।

বন্ধ করুন