বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > বেহালায় সৎ বাবার লাগাতার ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা নাবালিকা, অবশেষে গ্রেফতার
বেহালায় নাবালিকাকে ধর্ষণের অভিযোগ সৎ বাবার বিরুদ্ধে। প্রতীকী ছবি।
বেহালায় নাবালিকাকে ধর্ষণের অভিযোগ সৎ বাবার বিরুদ্ধে। প্রতীকী ছবি।

বেহালায় সৎ বাবার লাগাতার ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা নাবালিকা, অবশেষে গ্রেফতার

  • বেহালার একটি বাড়িতে মা, বোন এবং সৎ বাবার সঙ্গে থাকে ওই নাবালিকা। গত ৭ মাস ধরে তারা ওই বাড়িতে ভাড়া রয়েছে। ওই নাবালিকার মায়ের।আসল বাড়ি পাঞ্জাবে। জানা গিয়েছে, নাবালিকার প্রকৃত বাবা তাদের দুই বোনকে বিক্রি করে দিতে চেয়েছিল।

সৎবাবার যৌন লালসার শিকার হল এক নাবালিকা। শুধু তাই নয়, সৎ বাবার লাগাতার যৌন নির্যাতনের ফলে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পরেছে ওই নাবালিকা। এমনই অভিযোগ উঠেছে বেহালা থানা এলাকায়। স্থানীয়দের তৎপরতায় বিষয়টি প্রকাশ্যে আসতেই বেহালা থানার পুলিশ নাবালিকার সৎ বাবাকে গ্রেফতার করেছে। ধৃতকে আজ আলিপুর আদালতে তোলা হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, বেহালার একটি বাড়িতে মা, বোন এবং সৎ বাবার সঙ্গে থাকে ওই নাবালিকা। গত ৭ মাস ধরে তারা ওই বাড়িতে ভাড়া রয়েছে। ওই নাবালিকার মায়ের।আসল বাড়ি পাঞ্জাবে। জানা গিয়েছে, নাবালিকার প্রকৃত বাবা তাদের দুই বোনকে বিক্রি করে দিতে চেয়েছিল। পরে সেখান থেকে দুই মেয়েকে নিয়ে কলকাতায় চলে এসে নতুন সংসার বাঁধেন নাবালিকার মা। প্রতিবেশীদের অভিযোগ, তাদের ব্যবহার মোটেই স্বাভাবিক নয়। ভাড়া নিয়ে মাঝেমধ্যেই মালিকের সঙ্গে তারা ঝামেলায় জড়িয়ে পড়ে। দিন কয়েক আগেই, ওই নাবালিকা জল নিতে গেলে প্রতিবেশী কয়েকজন মহিলা লক্ষ্য করেন নাবালিকার পেটের আকার উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পেয়েছে। তাদের দেখে পেট কাপড় দিকে ঢাকার চেষ্টা করে ওই নাবালিকা। তাতে সন্দেহ প্রতিবেশীদের। এরপরে আসল ঘটনা প্রকাশ্যে আসে। বিষয়টি নিয়ে খবর যায় বেহালা থানায়। পরে বেহালা থানার পুলিশ এসে অভিযুক্ত সৎ বাবাকে গ্রেফতার করে।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি রাজ্যে একের পর এক ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। তা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে খোদ কলকাতা হাইকোর্ট। যারমধ্যে নদিয়ার হাঁসখালি ধর্ষণের ঘটনায় তোলপাড় পড়ে গিয়েছে রাজ্য থেকে শুরু করে কেন্দ্রে। রাজ্যে একের পর এক যেভাবে ধর্ষণের ঘটনা ঘটছে তাতে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে বিজেপি। গতকালই বিজেপি প্রভাবিত আইনজীবীদের প্রতিনিধিরা রাষ্ট্রপতির সঙ্গে দেখা করে রাজ্যে রাষ্ট্রপতি শাসনের দাবি জানিয়েছেন।

বন্ধ করুন