বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > আরে দাঁড়ান, মরে যাব… আদালত থেকে বেরিয়ে চিল চিৎকার প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থর
পার্থ চট্টোপাধ্যায়, প্রাক্তন মন্ত্রী (ANI) (HT_PRINT)

আরে দাঁড়ান, মরে যাব… আদালত থেকে বেরিয়ে চিল চিৎকার প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থর

  • আদালতেও কেঁদেকেটে জামিনের জন্য কাতর আবেদন করেন তিনি। জেল থেকে একটি খাতা এনেছিলেন তিনি। সেখানে একেবারে পয়েন্ট লেখা ছিল বলে খবর। বিচারকের সামনে একেবারে ফলাও করে প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় শুক্রবার জানিয়ে দেন, আমি এমবিএ, ডক্টরেট, রামকৃষ্ণ মিশনের ছাত্র।

আরে দাঁড়ান, মরে যাব…আদালত থেকে বেরিয়েই ঠেলাঠেলির মাঝে চিলচিৎকার পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের। সূত্রের খবর আদালতের বাইরে বের হতেই সংবাদ মাধ্যম ঘিরে ধরেছিল তাকে। পুলিশও ভিড় ঠেলে তাকে নিয়ে বের করার চেষ্টা করেন। আর তখনই একেবারে নজিরবিহীনভাবে চিৎকার শুরু করেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়। তিনি বলেন, আরে দাঁড়ান, মরে যাব…তার এই চিৎকার শুনে কার্যত হতচকিত হয়ে পড়েন আদালত চত্বরে থাকা অনেকেই।

অনেকের মতে, মন্ত্রী থাকাকালীন পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের দাপট সম্পর্কে অনেকেই সুপরিচিত। দলের অনেকেই তার দাপটে কাঁটা হয়ে থাকতেন। সেই পার্থই এখন জেলবন্দি। তবে এদিন তাঁর চিৎকার শুনে অনেকেরই যেন মনে পড়ে যায় পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের সেই আগের দাপট সম্পর্কে। তবে জেলে থাকা অবস্থায় কতটা অসহায় তিনি সেটাও যেন এদিন বার বার সামনে আসে।

আদালতেও কেঁদেকেটে জামিনের জন্য কাতর আবেদন করেন তিনি। জেল থেকে একটি খাতা এনেছিলেন তিনি। সেখানে একেবারে পয়েন্ট লেখা ছিল বলে খবর। বিচারকের সামনে একেবারে ফলাও করে প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় শুক্রবার জানিয়ে দেন, আমি এমবিএ, ডক্টরেট, রামকৃষ্ণ মিশনের ছাত্র। পাশাপাশি পরিবারের কে কতটা উচ্চশিক্ষিত সেকথাও তিনি জানান। এর সঙ্গেই তিনি জানিয়ে দেন, ২৮টি ওষুধ খাই। খুব অসুস্থ। পাশাপাশি এসএসসি নামক স্বয়ংশাসিত সংস্থার ক্ষেত্রে তাঁর যে কোনও ভূমিকা নেই একথাও জানিয়ে দেন তিনি।

বন্ধ করুন