বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > Maniktala Bypoll: একসঙ্গে হাঁটা, মমতার সঙ্গে ভাগ করে মুড়ি খাওয়া! মানিকতলায় টিকিট সুপ্তিকে, কেন শ্রেয়া নয়?

Maniktala Bypoll: একসঙ্গে হাঁটা, মমতার সঙ্গে ভাগ করে মুড়ি খাওয়া! মানিকতলায় টিকিট সুপ্তিকে, কেন শ্রেয়া নয়?

সুপ্তি পান্ডে।

মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায় পড়তেন যোগমায়া কলেজে। আর সুপ্তি পান্ডে পড়তেন গোখেলে। বিড়লা প্ল্যানেটোরিয়াম পর্যন্ত একসঙ্গে হেঁটে তাঁরা আসতেন।

মানিকতলা কেন্দ্রে তৃণমূলের সম্ভাব্য প্রার্থী হচ্ছেন সাধন পান্ডের স্ত্রী সুপ্তি পান্ডে। মেয়ে শ্রেয়া পান্ডেকে টিকিট না দিয়ে এবার টিকিট পাচ্ছেন সুপ্তি। এমনকী শ্রেয়াকে ভোটের কাজ থেকে দূূরে রাখার কথা বলা হয়েছে বলে সূত্রের খবর। 

তবে সুপ্তি পান্ডের আরও একটা পরিচয় রয়েছে। তিনি হলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়ের সহপাঠী। এমনকী ছাত্রী জীবনে মমতার বাড়িতে যেতেন সুপ্তি। সেসব অনেক দিন আগের কথা। এদিকে সংবাদ মাধ্যমের প্রশ্নের উত্তরে তিনি একাধিকবার সেই দিনগুলোর কথা তুলে ধরেছেন। তবে সুপ্তি পান্ডে জানিয়ে দিয়েছেন যে বন্ধুত্ব একজায়গায় আর কাজ অন্য জায়গায়। যারা ভাবছেন এই বন্ধুত্বের জন্য তিনি প্রার্থী হিসাবে আমাকে ভাবছেন তাহলে তিনি মুর্খ। 

মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায় পড়তেন যোগমায়া কলেজে। আর সুপ্তি পান্ডে পড়তেন গোখেলে। বিড়লা প্ল্যানেটোরিয়াম পর্যন্ত একসঙ্গে হেঁটে তাঁরা আসতেন। একেবারে সাধারণ বাড়ির মেয়ে ছিলেন মমতা। অজস্র স্মৃতি রয়েছে তাঁর মমতাকে ঘিরে। সেই ছাত্রী মমতা। সেই ছোটবেলার দিনগুলো খুব মিস করেন তিনি। 

সেই মমতার ছোটবেলার বন্ধু। সেই স্মৃতি ভিড় করে আসে মনে। সেই সাধন পান্ডের মৃত্যুর পর যে আসনটা ফাঁকা হয়েছিল সেখানেই প্রার্থী হতে চলেছেন সুপ্তি পান্ডে। 

এদিকে শ্রেয়া পান্ডেকে টিকিট না দিয়ে মা সুপ্তিকে টিকিট দেওয়াকে কেন্দ্র করে নানা চর্চা হচ্ছে মানিকতলায়। তবে শেষ পর্যন্ত এই উপনির্বাচনে কী হয় সেটাই দেখার। তবে শ্রেয়ার কথাটা আগামীদিনের জন্য ভেবেছেন নেত্রী, এমনটাই জানিয়েছেন সুপ্তি।

২০১১ সালে মানিকতলা বিধানসভা কেন্দ্র গঠিত হওয়ার পরে সেখানে প্রার্থী হয়েছিলেন সাধন পাণ্ডে। সেই সময় তিনি ভোটে জয়ী হয়েছিলেন। পরে ২০১৬ এবং ২০২১ সালের বিধানসভা ভোটেও তিনি সেখানে জয়ী হয়েছিলেন। মৃত্যুর আগে পর্যন্ত তিনি ছিলেন রাজ্যের ক্রেতা সুরক্ষা মন্ত্রী। এবার সেই আসনে প্রার্থী হচ্ছেন তাঁরই স্ত্রী। ইতিমধ্য়ে প্রচারও শুরু হয়ে গিয়েছে। 

এদিকে সোমবার উত্তর কলকাতা নেতাদের নিয়ে বৈঠক করেছিলেন তৃণমূল নেত্রী। ডেপুটি মেয়র অতীন ঘোষ, মেয়র পারিষদ স্বপন সমাদ্দার, বেলেঘাটার বিধায়ক পরেশ পাল এবং তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষ সেই বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন। পরে মঙ্গলবার কোর কমিটির সদস্য এবং মানিকতলা বিধানসভার অন্তর্গত কাউন্সিলরদের নিয়ে বৈঠক করেন। সেই বৈঠকে সুপ্তি পাণ্ডেও উপস্থিত ছিলেন। সেখানেই তাঁকে প্রার্থী করার বিষয়ে সীলমোহর দেন মমতা। এদিকে এবার মানিকতলা উপনির্বাচনে বড় দায়িত্ব পেয়েছেন কুণাল ঘোষ। 

বাংলার মুখ খবর

Latest News

কৃষ্ণনগরে মাছ ব্যবসায়ীরকে গুলি করে টাকা ছিনতাই, ধৃত তৃণমূল ছাত্র পরিষদ নেতাসহ ২ হাতে জয়ন্তর ট্যাটু! আড়িয়াদহকাণ্ডে গ্রেফতার আরেক কালপ্রিট রাহুল গুপ্ত 'সাহস থাকলে…' হাসিনের সঙ্গে সুখের হয়নি বিয়ে, সানিয়াকে সত্যিই বিয়ে করছেন শামি প্রথমেই সূর্যের কথা বলেননি গম্ভীর, হার্দিক ক্যাপ্টেন না হওয়ার কারণ একেবারেই অন্য ‘তোর বাপ আমি ***’, ‘চোর’ শুনে বললেন শুভেন্দু, জুতো দেখিয়ে বললেন ‘নোংরা কালচার’ ভিকি-তৃপ্তির নতুন ছবি ‘ব্যাড নিউজ’-এর সঙ্গে বিশেষ যোগ সুস্মিতা সেনের! কী বলুন তো জেনে নিন শ্রাবণ মাসে ভোলেনাথের আশীর্বাদ পেতে কী করবেন আর কী করবেন না শক্তি বাড়াল নিম্নচাপ, দক্ষিণবঙ্গের কোথায় কবে ভারী বৃষ্টি হতে চলেছে? শীর্ষ নেতৃত্বের শিলমোহর নিয়ে বসেছিলেন মসনদে, কালনার সেই পুরপ্রধানকে শোকজ করল TMC 'গুলি করতে হল কেন?' অগ্নিগর্ভ বাংলাদেশ, হাসিনার সরকারকে প্রশ্ন চঞ্চল-ফারুকিদের

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.