বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > বাড়ল শুভেন্দুর রক্ষাকবচের মেয়াদ, ১৭ জানুয়ারি পর্যন্ত স্বস্তি বিরোধী দলনেতার

বাড়ল শুভেন্দুর রক্ষাকবচের মেয়াদ, ১৭ জানুয়ারি পর্যন্ত স্বস্তি বিরোধী দলনেতার

বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী (HT_PRINT)

আগামী ১৭ জানুয়ারি পর্যন্ত শুভেন্দুবাবুর রক্ষাকবচের মেয়াদ বাড়ানোর নির্দেশ দেন বিচারপতি মান্থা। এমনকী ২৮ নভেম্বর দায়ের হওয়া মামলাতেও শুভেন্দুবাবুর বিরুদ্ধে কোনও কড়া পদক্ষেপ পুলিশ করতে পারবে না বলে জানান তিনি।

বছরের শুরুতেই ফের আদালত থেকে স্বস্তি পেলেন শুভেন্দু অধিকারী। তাঁর বিরুদ্ধে রাজ্য পুলিশের দায়ের করা ৬টি মামলায় বিরোধী দলনেতাকে রক্ষাকবচ দিল কলকাতা হাইকোর্ট। এই মামলাগুলিতে ১৭ জানুয়ারি পর্যন্ত শুভেন্দুর বিরুদ্ধে পুলিশ কোনও কড়া পদক্ষেপ করতে পারবে না বলে নির্দেশ দিয়েছেন বিচারপতি রাজশেখর মান্থা।

মঙ্গলবার মামলার শুনানিতে শুভেন্দুর আইনজীবী বলেন, গত ২৮ নভেম্বর শুভেন্দুর বিরুদ্ধে টেন্ডার দুর্নীতির একটি মামলা দায়ের করেছে রাজ্য সরকার। যদিও বিষয়টি আদালতে বেমালুম চেপে গিয়েছে তারা। এই সমস্ত মামলা রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। শুভেন্দুবাবুর প্রতি রাজনৈতিক প্রতিহিংসা চরিতার্থ করতে মামলাগুলি দায়ের করা হয়েছে। এর মধ্যে কোনও মামলারই কোনও ভিত্তি নেই। অকারণে হেনস্থা করতে পুলিশকে ব্যবহার করতে চাইছে তৃণমূল ও রাজ্য সরকার। যদিও এব্যাপারে নিজের বক্তব্য এদিন জানায়নি রাজ্য সরকার। আগামী ৫ জানুয়ারি মামলাটির শুনানিতে রাজ্যের পক্ষ রাখবেন অ্যাডভোকেট জেনারেল।

এর পরই আগামী ১৭ জানুয়ারি পর্যন্ত শুভেন্দুবাবুর রক্ষাকবচের মেয়াদ বাড়ানোর নির্দেশ দেন বিচারপতি মান্থা। এমনকী ২৮ নভেম্বর দায়ের হওয়া মামলাতেও শুভেন্দুবাবুর বিরুদ্ধে কোনও কড়া পদক্ষেপ পুলিশ করতে পারবে না বলে জানান তিনি।

গত ২৯ নভেম্বর শুভেন্দু অধিকারীর বিরুদ্ধে রাজ্য সরকারের দায়ের করা ৫টি মামলায় তাঁকে রক্ষাকবচ দেন বিচারপতি মান্থা। সেই সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয় রাজ্য। কিন্তু রাজ্যকে আবার হাইকোর্টে পাঠিয়ে দেয় সুপ্রিম কোর্ট। এরই মধ্যে গত ১৪ ডিসেম্বর আসানসোলে পদপিষ্টের ঘটনায় শুভেন্দুর সঙ্গে বিচারপতি মান্থাকে নাম করে সাংবাদিক বৈঠক থেকে আক্রমণ করেন তৃণমূলের এক মুখপাত্র।

 

বন্ধ করুন