বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > শুভেন্দুর বিরুদ্ধে টেন্ডার দুর্নীতির মামলায় কন্টাইয়ের IC-কে তলব CBI-এর

শুভেন্দুর বিরুদ্ধে টেন্ডার দুর্নীতির মামলায় কন্টাইয়ের IC-কে তলব CBI-এর

কাঁথি থানা।

অমলেন্দুবাবুকে তলবের পিছনে শুক্রবার শুভেন্দুঘনিষ্ঠ ঠিকাদার রামচন্দ্র পন্ডার বিবৃতির কোনও ভূমিকা রয়েছে কি না তা নিয়ে জেলায় জল্পনা তৈরি হয়েছে।

শুভেন্দু অধিকারীর বিরুদ্ধে দায়ের টেন্ডার দুর্নীতির তদন্তভার আগেই সিবিআইকে দিয়েছে কলকাতা হাইকোর্ট। সেই ঘটনার তদন্তে নেমে শনিবার কন্টাই থানার আইসিকে তলব করল সিবিআই। আইসি অমলেন্দু বিশ্বাসকে সোমবার সকাল ১০টায় নিজাম প্যালেসে ডেকে পাঠিয়েছেন কেন্দ্রীয় তদন্তকারীরা। অমলেন্দুবাবুকে তলবের পিছনে শুক্রবার শুভেন্দুঘনিষ্ঠ ঠিকাদার রামচন্দ্র পন্ডার বিবৃতির কোনও ভূমিকা রয়েছে কি না তা নিয়ে জেলায় জল্পনা তৈরি হয়েছে।

টেন্ডার দুর্নীতি মামলায় কলকাতা হাইকোর্ট থেকে নিঃশর্ত জামিন পেয়ে শুক্রবার মুক্তি পান রামচন্দ্রবাবু। সন্ধ্যায় এক সাংবাদিক বৈঠকে একের পর এক বিস্ফোরক দাবি করেন তিনি। বলেন, আমাকে শুভেন্দু অধিকারীর নাম নিতে মারাত্মক চাপ দেওয়া হয়েছে। কলকাতা থেকে আধিকারিকরা এসে টেবিলে রিভলভার রেখে আমাকে জেরা করেছেন। নিরাপত্তারক্ষী বন্দুক দিয়ে আমার পেটে খোঁচা দিয়েছে। কলকাতার আধিকারিকরা হুমকি দিয়েছেন, শুভেন্দুর নাম না বললে ৩ বছর জেলে ভরে রেখে দেব। 

তিনি দাবি করেন, পুলিশ হেফাজতে তাঁকে জল খেতে দেওয়া হয়নি। খাবারের সঙ্গে ওষুধ মিশিয়ে তাঁকে প্রভাবিত করার চেষ্টা হয়েছে। এমনকী স্ত্রীকে গ্রেফতারের হুমকি দেওয়া হয়েছে। আগে থেকে লেখা বয়ানে সই করার জন্য চাপও দেওয়া হয়েছে। যদিও যাবতীয় অভিযোগ অস্বীকার করেছেন কন্টাইয়ের SDPO.

সেই সাংবাদিক বৈঠকের পরদিনই অমলেন্দুবাবুর কাছে পৌঁছল সিবিআইয়ের তলব। যাতে অনেকের অনুমান, রাম পন্ডার অভিযোগের ভিত্তিতেই এই সিদ্ধান্ত।

 

বন্ধ করুন