বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > লোকায়ুক্ত পদে রাজ্যের পালটা নাম সুপারিশ করতে চলেছেন শুভেন্দু অধিকারী
শুভেন্দু অধিকারী এবং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই এবং এএনআই)
শুভেন্দু অধিকারী এবং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই এবং এএনআই)

লোকায়ুক্ত পদে রাজ্যের পালটা নাম সুপারিশ করতে চলেছেন শুভেন্দু অধিকারী

  • সোমবার এক টুইটে শুভেন্দুবাবু জানিয়েছেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও বিধানসভার স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায় নিজেদের মতো করে লোকায়ুক্তের নাম সুপারিশ করেছেন।

রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে একতরফা সিদ্ধান্ত গ্রহণের অভিযোগ তুলে লোকায়ুক্ত নিয়োগে রাজ্যপালকে পৃথক সুপারিশ পাঠাতে চলেছেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। সোমবার টুইটারে তিনি একথা জানিয়েছেন।

লোকায়ুক্ত হিসাবে প্রাক্তন বিচারপতি অসীমকুমার রায়ের নাম সুপারিশ করতে চলেছে রাজ্য সরকার। শুভেন্দুবাবুর দাবি, গত ২২ ডিসেম্বর চিঠি দিয়ে মুখ্যসচিবের কাছে এব্যাপারে রাজ্যের ভাবনা জানতে চান তিনি। কিন্তু তার কোনও জবাব পাননি তিনি। এর পর সোমবারের বৈঠক বয়কট করেন শুভেন্দুবাবু। বিধানসভার সিলেকশন কমিটির ওই বৈঠকে লোকায়ুক্ত হিসাবে অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি অসীম রায়ের নাম চূড়ান্ত হয়। রাজ্য মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান হিসাবে মনোনীত হয়েছেন শিবকান্ত প্রসাদ।

সোমবার এক টুইটে শুভেন্দুবাবু জানিয়েছেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও বিধানসভার স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায় নিজেদের মতো করে লোকায়ুক্তের নাম সুপারিশ করেছেন। বিরোধী দলনেতা হিসাবে আমারও নাম সুপারিশের অধিকার রয়েছে। আমি আমার মতো করে রাজ্যপালের কাছে নাম সুপারিশ করবো। রাজ্যপাল কাকে নিয়োগ করবেন সেটা তাঁর এক্তিয়ার।

তবে শুভেন্দুবাবুর অভিযোগ খারিজ করেছেন বিমানবাবু। তিনি বলেন, ‘দীর্ঘদিনের অভিজ্ঞতায় এই বৈঠকে বিরোধী দলনেতার অনুপস্থিতি আগে দেখিনি। এর আগে সূর্যকান্তবাবু ও আবদুল মান্নান তাঁদের অসম্মতির কথা জানিয়েছিলেন। সেই বক্তব্য নথিভুক্ত হয়েছিল। কিন্তু শুভেন্দুবাবু কেন বৈঠকে অনুপস্থিত থাকলেন জানি না।’

 

বন্ধ করুন