বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > 'ধরে রাখা কঠিন', রাজনীতি থেকে বিদায়ের ইঙ্গিত তাপস রায়ের, অভিমানে ছাড়তে চান দল?
তাপস রায়।

'ধরে রাখা কঠিন', রাজনীতি থেকে বিদায়ের ইঙ্গিত তাপস রায়ের, অভিমানে ছাড়তে চান দল?

  • তিনি বলছেন, আমাকে ধরে রাখা সহজ নয়। তাই সময় যখন হবে তখন দলকে নিজের রাজনীতি ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে দেব। প্রশ্ন উঠছে তবে কি জোর করে দলে ধরে রাখার চেষ্টা করা হচ্ছে তাপসকে?

বরাহনগরের তৃণমূল বিধায়ক তাপস রায়। তৃণমূলের সুখে দুঃখে দলের পাশ থেকে সরেননি তিনি। তবে সেই তাপস রায়ই এবার অন্যরকম ইঙ্গিত দিলেন। একটি সভার ভিডিয়োতে তাপস রায়কে বলতে শোনা গিয়েছে, আমায় ধরে রাখা খুব কঠিন। সময় এলেই দলকে জানিয়ে দেব যে, আর রাজনীতি করতে চাই না। আর তাপস রায়ের মুখে একথা শুনে রীতিমতো শোরগোল পড়ে গিয়েছে ঘাসফুলের রাজনীতিতে। তবে কি অভিমানেই দল ছাড়তে চাইছেন, বলা ভালো রাজনীতি ছাড়তে চাইছেন তাপস রায়?

তবে সূত্রের খবর, এবার মন্ত্রিসভার রদবদলের সময় অনেকেরই ধারণা ছিল এবার হয়তো মন্ত্রীত্ব পাবেন তিনি। না সেটি শেষ পর্যন্ত হয়নি। তবে দল যখনই অস্বস্তিতে তখনও দলের পাশে থেকে জবাব দিচ্ছেন তাপস। আর সেই জবাব দিতে দিতে কি ক্লান্ত দীর্ঘদিনের রাজনীতিবিদ? এনিয়েই নানা প্রশ্ন ঘুরছে। তবে দল সূত্রে খবর, তাঁর পুত্র আমেরিকায় কর্মরত, মেয়েও কলকাতায় বেসরকারি সংস্থায় কর্মরত। সেক্ষেত্রে রাজনীতি থেকে সন্ন্যাস নিয়ে কি তিনি বিদেশে চলে যেতে চান?

তিনি বলছেন, আমাকে ধরে রাখা সহজ নয়। তাই সময় যখন হবে তখন দলকে নিজের রাজনীতি ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে দেব। প্রশ্ন উঠছে তবে কি জোর করে দলে ধরে রাখার চেষ্টা করা হচ্ছে তাপসকে?

কংগ্রেসী ঘরানার রাজনীতিতে সোমেন অনুগামী থেকে একসময় মমতা অনুগামী হয়ে গিয়েছিলেন তাপস। বরাহনগর থেকে তিনবারের বিধায়ক। বর্তমানে তিনি রাজ্য কমিটির সহ সভাপতি, দলের অন্যতম মুখপাত্র। সেই তিনিই চাইছেন অবসর নিতে।

বন্ধ করুন