বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > পদ্ম প্রত্যাখ্যানের পর বুদ্ধদেবকে খোঁচা তসলিমার, মনে করালেন ২০০৩ সালের ঘটনা
তসলিমা নসরিন

পদ্ম প্রত্যাখ্যানের পর বুদ্ধদেবকে খোঁচা তসলিমার, মনে করালেন ২০০৩ সালের ঘটনা

  • বুদ্ধদেবকে পদ্ম প্রত্যাখ্যান প্রসঙ্গে কটাক্ষ করে ফেসবুকে পোস্ট করলেন লেখিকা তসলিমা নাসরিন।

সম্প্রতি কেন্দ্রের তরফে ঘোষণা করা হয়েছিল যে বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যকে পদ্মভূষণ দেওয়া হবে। তবে পশ্চিমবঙ্গের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী সেই সম্মান ফিরিয়ে দেন। সেই নিয়ে বিভিন্ন ব্যক্তি তাঁর সমর্থনে দাঁড়িয়েছেন, আবার অনেকেই সমালোচনা করেছেন। এই আবহে এবার বুদ্ধদেবকে এই প্রসঙ্গে কটাক্ষ করে ফেসবুকে পোস্ট করলেন লেখিকা তসলিমা নাসরিন।

তসলিমার সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট মানেই বিতর্ক। সেই লেখিকা এবার বুদ্ধদেবকে খোঁচা মেরে প্রায় দুই দশক পুরোনো ঘটনা মনে করালেন। যা নিয়ে বঙ্গ রাজনৈতিক মহলে শোরগোল পড়ে যায়। তসলিমা লিখলেন, "এক পরিচিত লোক ফোন করে বলল, 'বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য পদ্ম ভূষণ পেয়েছেন তোমার বই নিষিদ্ধ করার জন্য আর তোমাকে পশ্চিমবঙ্গ থেকে বের করে দেওয়ার জন্য।' আমি বললাম, 'কী সব আজেবাজে কথা বলছো!' লোকটি বলল, 'উনি পুরস্কার নেবেন না জানিয়ে দিয়েছেন'। আমি জিজ্ঞেস করলাম, ‘ও মা, কেন?’ ফোনের ওপারে থাকা লোকটি বললেন, ‘অনেক চেষ্টা চরিত্তির করেও তোমাকে ভারত থেকে পাকাপাকি ভাবে বের করতে না পারার ব্যর্থতার জন্য।‘ আমি বললাম, ‘উফ, তোমার মাথাটা গেছে।‘ ফোন রেখে দিলাম।"

উল্লেখ্য, ২০০৩ সালে বাম শাসনকালে পশ্চিমবঙ্গে নিষিদ্ধ হয় তসলিমার বই ‘দ্বিখণ্ডিত’। মৌলবাদীদের চাপে পড়ে তসলিমাকে কলকাতা ছাড়তে বলে রাজ্য সরকার। তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য অবশ্য তখন জানিয়েছিলেন, ব্যক্তিগতভাবে বই নিষিদ্ধ করার বিরুদ্ধে থাকলেও প্রশাসক হিসেবে এই কাজটা তাঁকে করতে হচ্ছে। এদিকে পদ্ম প্রত্যাখ্যান প্রসঙ্গে ছোট্ট বিবৃতিতে বুদ্ধদেব বলেন, ‘পদ্মভূষণ নিয়ে আমায় কেউ কিছু জানায়নি৷ যদি আমায় পদ্মভূষণ দেওয়া হয়ে থাকে তাহলে আমি তা প্রত্যাখ্যান করছি৷’

বন্ধ করুন