বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > বিষ খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা, অনেকটাই সুস্থ হয়ে উঠছেন শিক্ষিকারা
এভাবেই বিকাশ ভবনের সামনে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছিলেন ৫জন শিক্ষিকা (ছবি সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)
এভাবেই বিকাশ ভবনের সামনে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছিলেন ৫জন শিক্ষিকা (ছবি সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)

বিষ খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা, অনেকটাই সুস্থ হয়ে উঠছেন শিক্ষিকারা

  • তাঁদের এই বিষ খেয়ে আন্দোলনের ধরন নিয়ে অবশ্য ইতিমধ্যেই নানা প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে।

গত ২৪শে অগস্ট। উত্তরবঙ্গে বদলির প্রতিবাদে বিকাশ ভবনের সামনে আন্দোলনে নেমেছিলেন শিশু শিক্ষা কেন্দ্রের শিক্ষিকারা। বিকাশ ভবনের সামনেই বিষ খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন শিক্ষিকারা। এই ঘটনাকে ঘিরে ব্যাপক শোরগোল পড়ে রাজ্যে। অসুস্থ শিক্ষিকাদের ভর্তি করা হয়েছিল হাসপাতালে। শিক্ষিকা পুতুল মণ্ডল সহ ২জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাঁদের এনআরএস হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়। পুতুল মণ্ডলকে ভেন্টিলেশনে রেখেও চিকিৎসা করা হয়েছে। তবে হাসপাতাল সূত্রে খবর তাঁর অবস্থা আপাতত স্থিতিশীল। অপর শিক্ষিকাকেও এদিন হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়ার কথা রয়েছে। সব মিলিয়ে গত কয়েকদিন ধরে চিকিৎসকদের আপ্রাণ চেষ্টায় শিক্ষিকারা অনেকটাই সুস্থ হয়ে উঠেছেন।

এদিকে গোটা ঘটনায় রাজ্য সরকারের বদলি নীতির বিরুদ্ধে প্রতিবাদে সরব হয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী সহ বিরোধী শিবিরের নেতৃত্ব। বিরোধীদের দাবি, শিশু শিক্ষাকেন্দ্রের শিক্ষিকাদের সচরাচর বাড়ির কাছাকাছি এলাকাতেই বদলি করা হয়। কিন্তু এক্ষেত্রে তাঁদের কলকাতা, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনার শিশু শিক্ষাকেন্দ্র থেকে সরিয়ে উত্তরবঙ্গে বদলি করা হয়েছিল। তারই প্রতিবাদে তাঁরা আন্দোলনে নেমেছিলেন। শিক্ষামন্ত্রীর সঙ্গেও তাঁরা দেখা করার চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু কোনওভাবেই তাঁরা শিক্ষামন্ত্রীর দেখা পাননি। বাধ্য হয়েই তাঁরা বিকাশ ভবনের সামনে বিষ খেয়ে আত্মহত্যর চেষ্টা করেন। এমনটাই দাবি করেছিলেন আন্দোলনরত শিক্ষিকারা। কিন্তু তাঁদের এই বিষ খেয়ে আন্দোলনের ধরন নিয়ে অবশ্য ইতিমধ্যেই নানা প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। তবে পুরোপুরি সুস্থ হওয়ার পর তাঁদের উপর শাস্তির খাঁড়া নেমে আসতে পারে, এমনটাও মনে করছেন অনেকে। 

 

বন্ধ করুন