বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > স্বামীকে কেউ বাঁচাতে পারবে না, কে দিল আলাপনকে হুমকি চিঠি? সায়েন্স কলেজে তদন্ত
বাংলার প্রাক্তন মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি)
বাংলার প্রাক্তন মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি)

স্বামীকে কেউ বাঁচাতে পারবে না, কে দিল আলাপনকে হুমকি চিঠি? সায়েন্স কলেজে তদন্ত

  • এর সঙ্গেই আলাপন বন্দ্য়োপাধ্য়ায়ের সুরক্ষারও ব্যবস্থা করা হয়েছে।

আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি প্রাক্তন মুখ্যসচিব। বর্তমানে মুখ্যমন্ত্রীর মুখ্য উপদেষ্টা।সেই আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে হুমকি চিঠি পাঠানোর অভিযোগ। এনিয়ে হেয়ার স্ট্রিট থানায় একাধিক ধারায় মামলা করা হয়েছে। পুলিশ সূত্রে খবর হুমকি চিঠিটি আলাপনের স্ত্রীর কাছে আসে। এদিকে চিঠির বিষয়টি জানার পরই অত্যন্ত তৎপর রাজ্য সরকার। রাজাবাজার সায়ন্সে কলেজেও যান গোয়েন্দা বিভাগের আধিকারিকরা। এদিকে সেই চিঠিতে যে বিভাগীয় প্রধানের নাম জড়িয়ে ছিল তাঁর সঙ্গেও কথা বলার চেষ্টা করেন আধিকারিকরা। এর সঙ্গেই আলাপন বন্দ্য়োপাধ্য়ায়ের সুরক্ষারও ব্যবস্থা করা হয়েছে। 

চিঠিটি এসেছে আলাপনের স্ত্রী তথা কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সোনালি চক্রবর্তী বন্দ্য়োপাধ্যায়ের নামে। এদিকে বিভিন্ন সূত্রে জানা গিয়েছে সেই চিঠিতে উল্লেখ করা হয়েছে তাঁর স্বামীকে কেউ বাঁচাতে পারবে না। সেই চিঠিতে রাজাবাজার সায়েন্স কলেজের এক ল্যাবরেটরি কর্মীর সই রয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে। কেমিক্যাল টেকনোলজি বিভাগের এক কর্মরতারও এতে যোগ রয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। তবে নামগুলি ভুয়ো কি না সেটাও দেখছেন তদন্তকারীরা।

পুলিশ সূত্রে খবর, চিঠিতে দুজনের নাম ছিল বলে প্রাথমিকভাবে জানা যায়। সেই চিঠির বক্তব্য়কে যাচাই করার জন্যই রাজাবাজার সায়েন্স কলেজে যান তদন্তকারী আধিকারিকরা। তবে কী কারণে এই চিঠি পাঠানো হয়েছিল সেব্যাপারে পুলিশ এখনও পুরোপুরি নিশ্চিত নন। তবে প্রতিটি সূত্রই মিলিয়ে দেখতে চাইছেন তদন্তকারীরা। কলেজের এক অধ্যাপিকা বলেন, খুব দুঃখজনক। লজ্জাজনক ঘটনা। আমি চাই সত্য়টা তাড়াতাড়ি বেরিয়ে আসুক। তারপর মানুষ সবকিছু জানতে পারবেন। এদিকে পুলিশ ইতিমধ্যেই ১৭০, ৫০০, ৫০৬, ৪১৯ ধারায় মামলা করেছে।  

 

বন্ধ করুন