বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > Road Accident: পথ দুর্ঘটনার শিকার কুণাল ঘোষ, বাসের ধাক্কায় ক্ষতিগ্রস্ত গাড়ি, কেমন আছেন নেতা?

Road Accident: পথ দুর্ঘটনার শিকার কুণাল ঘোষ, বাসের ধাক্কায় ক্ষতিগ্রস্ত গাড়ি, কেমন আছেন নেতা?

কুণাল ঘোষ। (ফাইল ছবি)

এই বাস রেষারেষি করতে গিয়েই পথ দুর্ঘটনা ঘটেছে। নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলে ধাক্কা মেরে থেনে যায় বাসটি। পথ দুর্ঘটনা কমাতে রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে সেফ ড্রাইভ সেভ লাইভ কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে। বারবার মানুষকে সচেতন করা হয়েছে। কিন্তু পর পর পথ দুর্ঘটনা ঘটেছেও।

আজ, শুক্রবার পথ দুর্ঘটনার কবলে পড়লেন তৃণমূল কংগ্রেসের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক কুণাল ঘোষ। তাঁর গাড়িতে এদিন বেপরোয়া বাস এসে ধাক্কা মারে। আর তার জেরে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস নেতার গাড়ি। এই ঘটনায় শোরগোল পড়ে গিয়েছে। তবে কপালের জোরে সুস্থ আছেন কুণাল ঘোষ। তাঁর বিশেষ কোনও চোট লাগেনি। এই দুর্ঘটনার পর তিনি রওনা দিয়েছেন হলদিয়ায়।

ঠিক কী ঘটেছে শিয়ালদায়?‌ স্থানীয় সূত্রে খবর, আজ হলদিয়ায় কর্মসূচি আছে তৃণমূল কংগ্রেসের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক কুণাল ঘোষের। তাই তিনি সেখানে যাওয়ার জন্য বাড়ি থেকে সকাল ১০টা নাগাদ হলদিয়ার উদ্দেশ্যে রওনা হন। কিন্তু শিয়ালদা স্টেশনের কাছে ঘটে যায় পথ দুর্ঘটনা। একটি বাস অন্য বাসের সঙ্গে রেষারেষি করতে গিয়ে ধাক্কা মারে কুণাল ঘোষের গাড়িতে। তাতে তিনি চমকে যান। গাড়ি থেকে নেমে পড়েন তৃণমূল কংগ্রেস নেতা। ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে গাড়িটি। তবে কোনও চোট লাগেনি কুণাল ঘোষের। তারপর একটু ধাতস্ত হয়ে হলদিয়ার উদ্দেশ্যে রওনা দেন তিনি।

ঠিক কী বলেছেন কুণাল ঘোষ?‌ এই পথ দুর্ঘটনা নিয়ে কুণাল ঘোষ সংবাদমাধ্যমে বলেন, ‘‌সবসময় যেরকম রেষারেষি চলে সেরকমই চলছিল। তার জেরে ধাক্কা মেরেছে আমার গাড়িতে। আমি পুলিশকে বিষয়টি জানিয়েছি। বাসটিতে অফিস যাত্রীরা ছিলেন। তাই এই মুহূর্তে বাসটিকে আটকাতে নিষেধ করেছি। কারণ তাহলে সাধারণ মানুষের ভোগান্তি হবে। বাসের নম্বর ও চালকের নাম লিখে রাখা হয়েছে।’‌ পরে বাসটির ব্যবস্থা হবে বলে জানা গিয়েছে।

আর কী জানা যাচ্ছে?‌ এই বাস রেষারেষি করতে গিয়েই পথ দুর্ঘটনা ঘটেছে। নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলে ধাক্কা মেরে থেনে যায় বাসটি। পথ দুর্ঘটনা কমাতে রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে সেফ ড্রাইভ সেভ লাইভ কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে। বারবার মানুষকে সচেতন করা হয়েছে। কিন্তু পর পর পথ দুর্ঘটনা ঘটেছেও। এই বিষয়ে কুণাল ঘোষ বলেন, ‘‌এক্ষেত্রে পুলিশ–প্রশাসনের কিছু করার নেই। মানুষকে সচেতন হতে হবে। গতকালও চিংড়িহাটায় পথ দুর্ঘটনা ঘটেছে।’‌

বন্ধ করুন