বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > নতুন করে গঠিত হল তৃণমূলের হিন্দি সেল, চেয়ারম্যান হলেন সাংসদ দীনেশ ত্রিবেদী
প্রতীকী ছবি
প্রতীকী ছবি

নতুন করে গঠিত হল তৃণমূলের হিন্দি সেল, চেয়ারম্যান হলেন সাংসদ দীনেশ ত্রিবেদী

  • পুনর্গঠিত হিন্দি সেলকে কাজের বিস্তার অনুযায়ী তিনটি স্তরের কাঠামোতে ভাগ করা হয়েছে। রাজ্য স্তরের কেন্দ্রীয় সমন্বয় কমিটি, জেলা স্তরের কমিটি এবং ব্লক স্তরের কমিটিতে এবার থেকে কাজ হবে।

রাজ্য জুড়ে ছড়িয়ে থাকা অবাঙালি বাসিন্দাদের উন্নয়নের স্বার্থে এবং বিজেপি–র বিস্তারকে আটকানোর চেষ্টায় গত বছরই হিন্দি সেল গঠন করার নির্দেশ দেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শহর এবং শহরতলি ছাড়িয়ে গ্রামের আনাচে–কানাচে লাখো হিন্দিভাষী মানুষকে তৃণমূলের এক ছাতার তলায় নিয়ে আসার লক্ষ্যেই এই হিন্দি সেল গঠন করেন সুব্রত বক্সি।

এবার ২০২১–এ বিধানসভা ভোটকে সামনে রেখে হিন্দি সেলকে নতুন করে গড়ে তুলছে তৃণমূল। এটা বেশ তাৎপর্যপূর্ণ যে ১৪ সেপ্টেম্বর হিন্দি দিবসের দিনই এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। জানা গিয়েছে, নতুন করে গঠিত এই সেলের চেয়ারম্যান করে হয়েছে রাজ্যসভার সাংসদ দীনেশ ত্রিবেদীকে। সভাপতি হয়েছেন বিবেক গুপ্ত। পুনর্গঠিত হিন্দি সেলকে কাজের বিস্তার অনুযায়ী তিনটি স্তরের কাঠামোতে ভাগ করা হয়েছে। রাজ্য স্তরের কেন্দ্রীয় সমন্বয় কমিটি, জেলা স্তরের কমিটি এবং ব্লক স্তরের কমিটিতে এবার থেকে কাজ হবে।

এদিন এক সাংবাদিক বৈঠকে সাংসদ দীনেশ ত্রিবেদী বলেন, ‘‌প্রতিটি ভাষাকে তোড়ায় সাজিয়ে রাখা এক–একটি ফুল হিসেবে দেখেন আমাদের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সব ধরনের ভাষাভাষির লোকজনের জন্য পশ্চিমবঙ্গের দরজা খোলা রয়েছে।’‌ সাংসদের অভিযোগ, ‘‌এটা খুবই দুঃখজনক যে বাংলা ভাষাকে ধ্রুপদী ভাষার মর্যাদা দেওয়া হয়নি। আশা করি, এর পরের বছর জয়েন্ট প্রবেশিকা পরীক্ষার প্রশ্নপত্র বাংলা ভাষাতেও দেওয়া হবে।’

বন্ধ করুন