বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > নিউ টাউনে গ্রেফতার ২ 'ভুয়ো সাংবাদিক', উঠল পুলিশকে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ
দুই 'ভুয়ো সাংবাদিক'-এর দেখানো পরিচয়পত্র। (ছবি সৌজন্য নিজস্ব)
দুই 'ভুয়ো সাংবাদিক'-এর দেখানো পরিচয়পত্র। (ছবি সৌজন্য নিজস্ব)

নিউ টাউনে গ্রেফতার ২ 'ভুয়ো সাংবাদিক', উঠল পুলিশকে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ

এরা আদৌ সাংবাদিক নাকি এরা অন্য কোনও অসামাজিক কাজে যুক্ত, সেই বিষয়টি খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

ভুয়ো সাংবাদিক পরিচয়ে পুলিশের জালে ধরা পড়ল দু'জন। নাকা চেকিংয়ের সময়ে নিউ টাউনে ওই দুই ব্যক্তিকে প্রথমে আটক করা হয়। নিজেদের সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে পুলিশকে হুমকি দেওয়ারও অভিযোগ উঠেছে তাঁদের বিরুদ্ধে।

পুলিশ সূত্রে খবর, ধৃত দুজনের মধ্যে একজনের নাম বিন্ধ্যাচল সিং, অপরজনের নাম বিট্টু কুমার সিং। বিন্ধ্যাচলের বাড়ি বিহারে ও বিট্টুর বাড়ি ঝাড়খণ্ডে। তারা একটি ওলা গাড়ি করে আসছিল। সেই গাড়িটি চেকিংয়ের জন্য দাঁড় করানো হয়। তখনই গাড়ির ভিতরে থাকা দু'জন পুলিশের কাজে বাধা দিতে থাকে। তারা পুলিশকে হুমকি দেয় বলে অভিযোগ উঠেছে। নিজেদের সাংবাদিক হিসাবে বলে পরিচয় দেয় তাঁরা। সেই সময় পুলিশ তাদের পরিচয়পত্র দেখতে চাইলে প্রথমে তারা পরিচয়পত্র দেখাতে অস্বীকার করে। এরপরে তাদের আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়। তাদের কাছ থেকে একটি বুম মাইক্রোফোন পাওয়া যায় যেটিতে কে কে ডি নিউজ লেখা রয়েছে। বিন্ধাচল সিংয়ের কাছ থেকে মেয়াদ উত্তীর্ণ দুটি নিউজ পোর্টালের আই কার্ড পাওয়া যায়। এই সমস্ত তথ্য হাতে পাওয়ার পর তা নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে সঠিক উত্তর দিতে না পারায় তাঁদের গ্রেফতার করা হয়। এরা আদৌ সাংবাদিক নাকি এরা অন্য কোনও অসামাজিক কাজে যুক্ত, সেই বিষয়টি খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

পুলিশ ইতিমধ্যে তাঁদের জিজ্ঞাসাবাদ করা শুরু করেছে। বিন্ধ্যাচল নিজেকে প্রাইম টুডের ব্যুরো চিফ ও প্রাইম এক্সপোজারের বর্ধমান জেলার জেলা সাংবাদিক হিসাবে পরিচয় দিয়েছে। কিন্তু পুলিশ এখনও পর্যন্ত এই বিষয়ে নিশ্চিত হতে পারছে না। এর আগে ভুয়ো আইএএস অফিসার দেবাঞ্জন দেব ও ভুয়ো সিবিআই অফিসার শুভদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়কে ঘিরে নানা চাঞ্চল্যকর তথ্য উঠে এসেছে। পুলিশ তদন্তে নেমে জানতে পেরেছিল, এরা নানা পরিচয় দিয়ে মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করত। এবার ধৃত ২ ভুয়ো সাংবাদিককে জেরা করে আরও কোনও তথ্য উঠে আসে কিনা, এখন সেটাই দেখার। কী কারণে ভুয়ো সাংবাদিক সেজে তারা ঘুরছিল তা জানার জন্য তদন্ত শুরু করেছে নিউ টাউন থানার পুলিশ।

বন্ধ করুন