বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > গণধর্ষণের প্ল্যান করেই কি বৈদিক ভিলেজের পার্টিতে ডাকা হয়েছিল তরুণীকে?

গণধর্ষণের প্ল্যান করেই কি বৈদিক ভিলেজের পার্টিতে ডাকা হয়েছিল তরুণীকে?

বৈদিক ভিলেজ। ফাইল ছবি

এই ঘটনায় পার্টিতে নির্যাতিতার উপস্থিতি নিয়েও প্রশ্নের উত্তর খুঁজছেন গোয়েন্দারা। তদন্তকারীরা জানাচ্ছেন, নির্যাতিতা ওই পার্টিতে আমন্ত্রিত ছিলেন না। তাহলে কার সূত্রে তিনি সেখানে পৌঁছলেন?

বৈদিক ভিলেজ গণধর্ষণকাণ্ডে এখনও একাধিক প্রশ্নের উত্তর খুঁজছেন বিধাননগর কমিশনারেটের গোয়েন্দারা। একদিকে যেমন তথ্যপ্রমাণ জোগাড় করতে চ্যালেঞ্জের মুখে পড়তে হচ্ছে তাঁদের তেমনই অসহযোগিতার অভিযোগ উঠেছে বৈদিক ভিলেজ কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে। এমনকী ওই পার্টিতে নির্যাতিতার উপস্থিতির কারণ জানার চেষ্টা করছেন তদন্তকারীরা।

গত বুধবার মধ্যরাতে বৈদিক ভিলেজে গণধর্ষণের অভিযোগ ওঠে। নির্যাতিতা জানান, এক জন্মদিনের পার্টিতে গিয়েছিলেন তিনি। সেখানে তাঁকে পানীয়ের সঙ্গে মাদক খাইয়ে অচেতন করে গণধর্ষণ করে ৪ যুবক। অভিযোগ পেয়ে তদন্তে নামে পুলিশ। গ্রেফতার করা হয় ৪ অভিযুক্তকে। তাদের হেফাজতে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করছেন গোয়েন্দারা। কিন্তু ঘটনার তেমন কোনও তথ্যপ্রমাণ জোগাড় করতে পারেননি তারা। কারণ, ঘটনার পরদিন বেলা ১০টা পর্যন্ত নির্যাতিতা বৈদিক ভিলেজেই ছিলেন। ওদিকে বৃহস্পতিবার রাতেও সেখানে একটি পার্টি ছিল। ফলে তার আগে পুরো জায়গাটি পরিষ্কার করেছেন হোটেলের কর্মীরা। বদলে ফেলা হয়েছে বিছানার চাদর, তোয়ালে।

এই ঘটনায় পার্টিতে নির্যাতিতার উপস্থিতি নিয়েও প্রশ্নের উত্তর খুঁজছেন গোয়েন্দারা। তদন্তকারীরা জানাচ্ছেন, নির্যাতিতা ওই পার্টিতে আমন্ত্রিত ছিলেন না। তাহলে কার সূত্রে তিনি সেখানে পৌঁছলেন? ধর্ষণের পরিকল্পনা করেই তাকে ডাকা হয়েছিল কি না, তা জানতে ধৃতদের জিজ্ঞাসাবাদ করছেন তদন্তকারীরা। মাদক তারা কোথা থেকে পেল তাও জানার চেষ্টা চলছে।

এই ঘটনায় বৈদিক ভিলেজ কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে তদন্তে অসহযোগিতার অভিযোগ উঠেছে। পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, বৃহস্পতিবার অভিযোগ পেয়ে তদন্তকারীরা সেখানে পৌঁছলে অভিযুক্তদের ব্যাপারে তথ্য দিতে অস্বীকার করে কর্তৃপক্ষ। যদিও তৎপরতার সঙ্গে কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই ৪ অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তাদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির অধীনে গণধর্ষণ ও কাউকে অচেতন করার অভিযোগে মামলা দায়ের হয়েছে।

 

বন্ধ করুন