বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ‘‌পশ্চিমবঙ্গের ট্যাবলোর অনুমতি দিন’‌, টুইটে প্রধানমন্ত্রীকে বার্তা দিলেন তথাগত
তথাগত রায় (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
তথাগত রায় (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)

‘‌পশ্চিমবঙ্গের ট্যাবলোর অনুমতি দিন’‌, টুইটে প্রধানমন্ত্রীকে বার্তা দিলেন তথাগত

  • আজ, সোমবার টুইট করে বাংলার ট্যাবলোয় ছাড়পত্র দেওয়ার কথা প্রধানমন্ত্রীকে জানিয়েছেন তিনি।

বাংলার ট্যাবলো যাতে রাজধানীর বুকে ছাড়পত্র পায় তার জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সিদ্ধান্ত পুরন্বিবেচনা করতে আর্জি জানিয়েছিলেন। এবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পাশে দাঁড়ালেন বর্ষীয়ান বিজেপি নেতা তথা মেঘালয়ের প্রাক্তন রাজ্যপাল তথাগত রায়। আজ, সোমবার টুইট করে বাংলার ট্যাবলোয় ছাড়পত্র দেওয়ার কথা প্রধানমন্ত্রীকে জানিয়েছেন তিনি।

ঠিক কী লিখেছেন টুইট বার্তায়?‌ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে তিনি লেখেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমার আবেদন, অনুগ্রহ করে সাধারণতন্ত্র দিবসের উৎসবে পশ্চিমবঙ্গের ট্যাবলোর অনুমতি দিন। এতে নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর বীরত্বের চিত্র তুলে ধরা হয়েছে। নেতাজির সংগঠন আইএনএ ব্রিটিশদের বিশ্বাসকে নাড়িয়ে তাদের দ্রুত দেশ ছাড়তে বাধ্য করেছিল।’ তথাগত রায়ের এই টুইটের পর রাজ্য–রাজনীতি তোলপাড় হয়ে গিয়েছে।

এবার সাধারণতন্ত্র দিবসে পশ্চিমবঙ্গ সরকার নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসু এবং আইএনএ–কে নিয়ে তৈরি ট্যাবলো রাজধানীর বুকে নামাতে চেয়েছিল। কারণ এবার নেতাজির ১৭৫ তম জন্মবার্ষিকী। এই ট্যাবলো ছাড়পত্র দেয়নি কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রক। যার মন্ত্রী রাজনাথ সিং। তাঁকে চিঠি লিখেছিলেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীররঞ্জন চৌধুরী। এবার সরাসরি প্রধানমন্ত্রীর কাছে আবেদন করলেন তথাগত রায়। তাতে মুখ্যমন্ত্রীর গ্রহণযোগ্যতা বাড়ছে বলেই মনে করা হচ্ছে। ইতিমধ্যে সিপিআই প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলার ট্যাবলো–কে ছাড়পত্র না দেওয়ার গটনায়।

উল্লেখ্য, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় চিঠি লিখে জানান, কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্তে তিনি হতবাক এবং ব্যথিত। এতে স্বাধীনতা সংগ্রামীদের অপমান করা হয়েছে। বিষয়টি পুনর্বিবেচনার আর্জি জানাচ্ছি। দেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে বাংলা অগ্রণী ভূমিকা নিয়েছিল। কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্তে বাংলার মানুষে ব্যথিত হয়েছেন। বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায় প্রথম জাতীয়তাবাদের মন্ত্র ‘বন্দেমাতরম’ লিখেছিলেন। যা পরে জাতীয় গান হয়।

বন্ধ করুন