বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > Municipal Recruitment Scam: হাকিম বদলালেও বদলায়নি হুকুম, পুর দুর্নীতিতে CBI চ্যালেঞ্জ করে আবেদন সরকারের

Municipal Recruitment Scam: হাকিম বদলালেও বদলায়নি হুকুম, পুর দুর্নীতিতে CBI চ্যালেঞ্জ করে আবেদন সরকারের

প্রতীকী ছবি

বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়ের রায়কে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টে যায় রাজ্য। সর্বোচ্চ আদালত হাইকোর্টে নতুন বেঞ্চে মামলাটির শুনানির নির্দেশ দেয়। এর পর মামলাটি যায় বিচারপতি অমৃতা সিনহার বেঞ্চে। তিনিও সিবিআই ও ইডি তদন্তের নির্দেশ অপরিবর্তিত রাখেন। 

হাকিম বদলালেও বদলায়নি হুকুম। পুর নিয়োগ দুর্নীতিতে সিবিআই ও ইডি তদন্তের নির্দেশ বহাল রেখেছেন বিচারপতি অমৃতা সিনহা। মুখ বাঁচাতে এবার বিচারপতি সিনহার নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ হল রাজ্য। তাদের দাবি, পুরসভা সংক্রান্ত কোনও মামলার রায় দেওয়ার এক্তিয়ার নেই বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ে।

নিয়োগ দুর্নীতির তদন্তে হুগলির প্রোমোটার অয়ন শীলের বাড়ি ও অফিসে তল্লাশি চালিয়ে বিপুল পরিমাণ নথি উদ্ধার করেছিল ইডি। সেই নথিতে পুরসভায় নিয়োগ দুর্নীতির সূত্র পান তদন্তকারীরা। জানতে পারেন অয়ন শীলের সংস্থার মাধ্যমে নিয়োগের নামে কোটি কোটি টাকার দুর্নীতি হয়েছে। সংখ্যাটা ২০০ কোটির বেশি বলে অনুমান তাদের। এর পর ওই নথির ভিত্তিতে তদন্ত এগিয়ে নিয়ে যেতে চেয়ে বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের দ্বারস্থ হয় ইডি। বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায় তদন্ত এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার অনুমতি দেন।

বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়ের রায়কে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টে যায় রাজ্য। সর্বোচ্চ আদালত হাইকোর্টে নতুন বেঞ্চে মামলাটির শুনানির নির্দেশ দেয়। এর পর মামলাটি যায় বিচারপতি অমৃতা সিনহার বেঞ্চে। তিনিও সিবিআই ও ইডি তদন্তের নির্দেশ অপরিবর্তিত রাখেন। বিচারপতি সিনহার এই রায়কে চ্যালেঞ্জ করে ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ হল রাজ্য। চলতি সপ্তাহেই মামলাটির শুনানি হতে পারে।

পুর নিয়োগ দুর্নীতিতে রাজ্যের প্রায় ৭০টি পুরসভায় মোটা টাকার বিনিময়ে নিয়োগ হয়েছে বলে অভিযোগ। অভিযোগ, সমস্ত পুরসভার নিয়োগ প্রক্রিয়া পরিচালনার দায়িত্বে ছিল অয়ন শীলের সংস্থা। তারাই প্রার্থীদের কাছ থেকে টাকা নিয়ে মেধাতালিকা তৈরি হয়েছে। অয়ন শীলের অফিস থেকে উদ্ধার হয়েছে OMR শিট সহ একাধিক গুরুত্বপূর্ণ নথি।

 

বন্ধ করুন