Municipal workers splash sanitizer on a deserted road during the second phase of COVID-19 lockdown in Kolkata on Wednesday. (ANI Photo)
Municipal workers splash sanitizer on a deserted road during the second phase of COVID-19 lockdown in Kolkata on Wednesday. (ANI Photo)

কেন্দ্রীয় সরকারের হিসাব অনুসারে পশ্চিমবঙ্গে ২০০ পার করল করোনা আক্রান্তের সংখ্যা

  • কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক জানাচ্ছে, পশ্চিমবঙ্গে বুধবার সকালে COVID 19 রোগীর সংখ্যা ছিল ২১৩ জন। এর মধ্যে ৩৭ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি চলে গিয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ৭ জনের।

চাপের মুখে পরীক্ষার সংখ্যা বাড়তেই পশ্চিমবঙ্গে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রকের তথ্য অন্তত তাই বলছে। স্বাস্থ্য মন্ত্রকের ওয়েবসাইট অনুসারে এক রাতে পশ্চিমঙ্গে করোনা রোগীর সংখ্যা বেড়েছে ২৩ জন। যার ফলে ২০০ ছাড়িয়ে রাজ্যে করোনা রোগীর সংখ্যা বুধবার দাঁড়িয়েছে ২১৩-য়। যদিও রাজ্যের দেওয়া পরিসংখ্যানের সঙ্গে এই তথ্যের কোনও মিল এদিনও পাওয়া যানি।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক জানাচ্ছে, পশ্চিমবঙ্গে বুধবার সকালে COVID 19 রোগীর সংখ্যা ছিল ২১৩ জন। এর মধ্যে ৩৭ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি চলে গিয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ৭ জনের। অর্থাৎ ১৬৭ জন করোনা আক্রান্ত অবস্থায় চিকিৎসাধীন। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের পক্ষে জানানো হয়েছিল পশ্চিমবঙ্গে চিকিৎসাধীন ১২০ জন। অর্থাৎ বর্তমানে চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যার নিরিখে কেন্দ্রের সঙ্গে রাজ্যের ফারাক। ৪৭ জন।

পশ্চিমবঙ্গে করোনা সংক্রমণ বাড়তে শুরু করতেই রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে তথ্য চাপা দেওয়ার অভিযোগে সরব হয়েছে বিরোধীরা। গত ১ এপ্রিল থেকে পশ্চিমবঙ্গে করোনা আক্রান্তের মোট সংখ্যা প্রকাশ করা বন্ধ করে দিয়েছে স্বাস্থ্য দফতর। সঙ্গে করোনায় মৃত ঘোষণার জন্য একটি বিশেষজ্ঞ কমিটি গড়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। সরকারের তরফে জানানো হয়েছে, কোনও রোগী করোনা সংক্রমিত অবস্থায় মারা গেলেই তাঁকে করোনায় মৃত বলে মেনে নেবে না রাজ্য সরকার। সেই রোগীর আগে থেকে কোনও জটিল রোগ ছিল কি না তা খতিয়ে দেখবে বিশেষজ্ঞ কমিটি।



বন্ধ করুন