বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > রুবি হাসপাতালের ৩.৯২ লক্ষ টাকার বিল কমিয়ে ১.২০ লক্ষ করল স্বাস্থ্য কমিশন
ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

রুবি হাসপাতালের ৩.৯২ লক্ষ টাকার বিল কমিয়ে ১.২০ লক্ষ করল স্বাস্থ্য কমিশন

  • মৃতের এক আত্মীয় জানিয়েছেন, নিম্নবিত্ত পরিবারের ওই রোগীর ভর্তির সময় ২.২৫ লক্ষ টাকা জমা নেওয়া হয়। রোগীর মৃত্যুর পর আরও ৩.৯২ লক্ষ টাকা দাবি করা হয়।

করোনায় মৃত রোগীর পরিবারের কাছ থেকে তোলাবাজির অভিযোগ কলকাতার রুবি হাসপাতালের বিরুদ্ধে। এই মর্মে দায়ের একটি অভিযোগে রোগীর পরিবারের পক্ষে রায় দিল পশ্চিমবঙ্গ স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক কমিশন। 

উত্তর ২৪ পরগনার নোয়াপাড়ার বাসিন্দা বৃদ্ধা দীপালি বন্দ্যোপাধ্যায় করোনা আক্রান্ত হয়ে প্রায় ১৪ দিন রুবি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থাতেই তাঁর মৃত্যু হয়। মৃতার পরিবারের অভিযোগ, এর পরই শুরু হয় হাসপাতালের তোলাবাজি। 

মৃতের এক আত্মীয় জানিয়েছেন, নিম্নবিত্ত পরিবারের ওই রোগীর ভর্তির সময় ২.২৫ লক্ষ টাকা জমা নেওয়া হয়। রোগীর মৃত্যুর পর আরও ৩.৯২ লক্ষ টাকা দাবি করা হয়। কিন্তু সেই টাকা তাঁদের পক্ষে মেটানো সম্ভব নয় বলে জানিয়ে দেয় রোগীর পরিবার। এর পরই পরিবারটিকে হাসপাতালের তরফে হুমকি দেওয়া হতে থাকে বলে অভিযোগ। 

লাগাতার হুমকির মুখে পড়ে স্বাস্থ্য কমিশনের দ্বারস্থ হয় পরিবারটি। সেই অভিযোগের শুনানিতে হাসপাতালের বিরুদ্ধে অতিরিক্ত পয়সা নেওয়ার অভিযোগে শিলমোহর দেন কমিশনের প্রধান অসীমকুমার বন্দ্যোপাধ্যায়। এর পর তিনি নির্দেশ দেন, অতিরিক্ত ১.২০ লক্ষ টাকা ৫,০০০ টাকার কিস্তিতে মেটাতে হবে পরিবারটিকে। অর্থাৎ ২.৭২ লক্ষ টাকা অতিরিক্ত দাবি করেছিল রুবি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। 

 

বন্ধ করুন