বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > কার্যকালের মেয়াদ বাড়িয়েও আলাপনকে বদলির সিদ্ধান্ত কেন, প্রশ্ন তুললেন চন্দ্রিমা
চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য। (ফাইল ছবি, সৌজন্য ফেসবুক)
চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য। (ফাইল ছবি, সৌজন্য ফেসবুক)

কার্যকালের মেয়াদ বাড়িয়েও আলাপনকে বদলির সিদ্ধান্ত কেন, প্রশ্ন তুললেন চন্দ্রিমা

  • বিজেপি সরকারকে আক্রমণ শানিয়েছেন চন্দ্রিমা।

‌কার্যকালের মেয়াদ বাড়ানোর পরেও কেন সদ্য অবসর নেওয়া আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে বদলি করা হল? এই প্রশ্নই তুললেন রাজ্যের মন্ত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য।একইসঙ্গে কেন্দ্রীয় সরকারের এই সিদ্ধান্ত আদৌ আইন সম্মত কিনা, তা নিয়েই এবার প্রশ্ন তুললেন তিনি।কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্তের পিছনে প্রতিহিংসা লুকিয়ে রয়েছে বলে অভিযোগ তোলেন রাজ্যের এই মন্ত্রী।

এদিন রাজ্যের মন্ত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য প্রশ্ন তোলেন, ‘‌কী এমন হল যে ২৪ তারিখ থেকে চার দিনের মাথায় রাজ্যের মুখ্যসচিবকে বলা হল ৩১ মে তাঁকে দিল্লির কর্মীবর্গ ও প্রশিক্ষণ মন্ত্রকে যেতে বলা হল?‌ রাজ্যে এই মুহূর্তে যা বিপর্যয়, তাতে এই পরিস্থিতিতে এই ধরনের সিদ্ধান্ত আইন সঙ্গত কিনা, সেটাই জানতে চাই।’‌

একইসঙ্গে রাজ্য মন্ত্রিসভার এই সদস্য অভিযোগ তোলেন, কেন্দ্র বাংলার সঙ্গে কী ধরনের আচরণ করতে চাইছে, সেটা বুঝিয়ে দিচ্ছে। কেন্দ্রের বিরুদ্ধে তোপ দেগে চন্দ্রিমা বলেছেন, ‘‌প্রধানমন্ত্রী সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর বৈঠকের জন্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কলাইকুণ্ডা গেলেও ২০ মিনিট তাঁকে বসিয়ে রাখা হয়।মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে সঙ্গে নিয়ে দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষা করে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।এরপর প্রধানমন্ত্রীর অনুমতি নিয়েই তাঁরা সেখান থেকে বেরিয়ে যান।কিন্তু কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, মুখ্যসচিব ওয়াক আউট করেছেন।ওয়াক আউট করার প্রশ্ন কেন আসছে, সেটাই বোঝা গেল না।কোন পরিপ্রেক্ষিতে কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী বললেন, মুখ্যসচিব ওয়াক আউট করেছেন।’‌

উল্লেখ্য, রাজ্যের মুখ্যসচিব পদ থেকে আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় অবসর নিয়েছেন।তাঁকে মুখ্যমন্ত্রীর মুখ্য উপদেষ্টা হিসাবে নিয়োগ করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।তিন বছরের জন্য এই পদে থাকবেন তিনি।

বন্ধ করুন