বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > মাস্ক না পরলেই গ্রেফতার! ওমিক্রন ত্রাসের মাঝে রাজ্যের কোন এলাকায় চলল ধরপাকড়?

করোনা ইস্যুতে কোনও উদাসীনতাই রেয়াত করতে রাজি নয় প্রশাসন। আর সেই কারণেই সোনারপুর রাজপুর বাজার এলাকায় এদিন মাস্ক না পরার দায়ে ৩০ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এই এলাকায় শুক্রবার কড়া নজরদারি চালিয়েছে পুলিশ। বিভিন্ন গাড়িতেও চালকরা মাস্ক পরছেন কি না, তা খতিয়ে দেখেন পুলিশ কর্মীরা। এড়াও গণপরিবহনে সওয়ার যাত্রী থেকে বাজারে আসা মানুষরা মাস্ক পরছেন কি না, সেদিকে নজর রাখে পুলিশ। যারাই মাস্ক পরেনি, আজ তাদের এলাকা থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ প্রশাসন।

ওমিক্রন ত্রাসের মাঝে কার্যত ত্রস্ত দুই ২৪ পরগনা। আর সেদিকে তাকিয়ে এদিন সোনারপুর রাজপুর এলাকাতে মাস্ক পরা ও করোনার বিষয়ে সতর্কতা অবলম্বনের বার্তা দিয়ে মাইকিং এ প্রচার করে পুলিশ। এদিকে, রাজ্যে হু হু করে বাড়তে শুরু করে দিয়েছে করোনা। এদিকে, সপ্তাহের শুরুতে পশ্চিমবঙ্গে যেখানে দৈনিক ৫০০ জনের কাছাকাছি ছিল করোনা আক্রান্তের সংখ্যা, সেখানে সপ্তাহের শেষের দিকে গোটা রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা একদিনে তিন হাজার। কলকাতাতেই শুধু শেষ ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ১৯৫৪ জন। ফলে বড়দিন পরবর্তী শহরে আপাতত ২ হাজারের কাছাকাছি আক্রান্তের সংখ্যা। পরিসংখ্যান বলছে, শুক্রবার করোনায় সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১৫১০ জন। রাজ্যে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ১২৬৪৪ জন।

এদিকেস রাজ্যে ক্রমেই হু হু করে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। পূর্ব বর্ধমানে ইতিমধ্যেই ৩ টি ১০০ বেডের কোভিড হাসপাতালের পরিকাঠামো তৈরির বন্দোবস্ত করা হচ্ছে। অন্যদিকে, উত্তর ২৪ পরগনার পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ বাড়ছে। সেখানে পরিস্থিতি মোকাবিলায় কেন্দ্রীয় প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠকে বসেন মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক। এদিকে, রাজ্যে সংক্রমণের হার ৮.৪৬ শতাংশ। সুস্থতার হার ৯৮. ১৪ শতাংশ। রাজ্যে, কলকাতার পরই করোনা গ্রাফ নিয়ে সবচেয়ে বেশি উদ্বেগ বাড়াচ্ছে উত্তর ২৪ পরগনা, হাওড়া, পশ্চিম বর্ধমান। শেষ ২৪ ঘণ্টায় উত্তর ২৪ পরগনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৪৯৬ জন, হাওড়ায় ২৯৮ জন, ১৩৮ জন পশ্চিম বর্ধমানে।

 

বন্ধ করুন