Covid-19 সংক্রমণের শিকার হলেন সরকারি স্বাস্থ্যকেন্দ্রে কর্মরত আর এক চিকিৎসক। এএফপি-র ছবি। (AFP)
Covid-19 সংক্রমণের শিকার হলেন সরকারি স্বাস্থ্যকেন্দ্রে কর্মরত আর এক চিকিৎসক। এএফপি-র ছবি। (AFP)

আরও এক চিকিৎসকের শরীরে Covid-19 সংক্রমণ, জারি সতর্কতা

যে সমস্ত রোগী ১২-২০ মার্চ ওই ক্লিনিকে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা তে গিয়েছিলেন, তাঁদের সবাইকে নিজেদের বাড়িতে আগামী ১৫ দিন স্বেচ্ছা কোয়ারেন্টাইনে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

Covid-19 সংক্রমণের শিকার হলেন দিল্লির আরও এক মহল্লা ক্লিনিকের চিকিৎসক। গত ১০ দিনে এই নিয়ে রাজধানীর জনস্বাস্থ্য কেন্দ্রের দুই চিকিৎসক এই রোগে আক্রান্ত হলেন।

সংবাদসংস্থা এএনআই জানিয়েছে, ঘটনার জেরে সংশ্লিষ্ট এলাকায় নোটিশ জারি করে যে সমস্ত রোগী ১২-২০ মার্চ ওই ক্লিনিকে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা তে গিয়েছিলেন, তাঁদের সবাইকে নিজেদের বাড়িতে আগামী ১৫ দিন স্বেচ্ছা কোয়ারেন্টাইনে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

গত ২১ মার্চ সরকারি মহল্লা চিকিৎসা কেন্দ্রে কর্মরত এক চিকিৎসকের নমুনায় প্রথম করোনাভাইরাসের উপস্থিতি প্রমাণিত হয়। তিনি উত্তর-পূর্ব দিল্লির মৌজপুর এলাকার মহল্লা ক্লিনিকে কর্মরত ছিলেন।

ওই চিকিৎসকের সংস্পর্শে মোট ১,১৬৯ জন রোগী এসেছিলেন বলে জানা গিয়েছে। তাঁদের সবাইকে ১৪ দিন স্বেচ্ছা কোয়ারেন্টাইনে নিজেদের বাড়ির ভিতরে থাকার নির্দেশ দিয়েছে দিল্লি প্রশাসন।

এঁদের মধ্যে মার্চের ১২ থেকে ১৮ তারিখের মধ্যে বেশিরভাগ রোগী তাঁর সংস্পর্শে আসেন। বাকি আরও ৩০-৪০ রোগী পুরনো সীমাপুরি অঞ্চলে ওই চিকিৎসকের ব্যক্তিগত ক্লিনিকে দেখাতে গিয়েছিলেন।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের হিসেবে, এ পর্যন্ত ৯৭ জন করোনাভাইরাস সংক্রমণের শিকার হয়েছেন দিল্লিতে। তাঁদের মধ্যে ৬ জন সুস্থ হয়ে ফিরেছেন ও ২ জনের মৃত্যু হয়েছে।

বন্ধ করুন