আগামী মাসে দাম কমতে পারে এলপিজি সিলিন্ডারের, ইঙ্গিত কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর।
আগামী মাসে দাম কমতে পারে এলপিজি সিলিন্ডারের, ইঙ্গিত কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর।

রান্নার গ্যাসের দাম কমতে পারে মার্চে, দাবি পেট্রোলিয়াম মন্ত্রীর

  • আন্তর্জাতিক বাজারের চাপে চলতি মাসে দাম বেড়েছিল। আবার সামনের মাসে ফের দাম কমতে পারে বলে ইঙ্গিত মিলেছে, দাবি ধর্মেন্দ্র প্রধানের।

মার্চ মাসে কমতে পারে রান্নার গ্যাসের (এলপিজির) দাম। বৃহস্পতিবার এই সম্ভাবনার কথা জানিয়েছেন খোদ কেন্দ্রীয় পেট্রোলিয়াম ও প্রাকৃতিক গ্যাস তথা ইস্পাত বিভাগের মন্ত্রী ধর্মেন্দ্র প্রধান।

দুই দিনের ছত্তিশগড় সফরে এসে এ দিন রায়পুরে সাংবাদিকদের মন্ত্রী জানান, ‘এলপিজি সিলিন্ডারের দাম ক্রমাগত বেড়ে চলেছে, এই অভিযোগ সত্যি নয়। আন্তর্জাতিক বাজারের চাপে চলতি মাসে দাম বেড়েছিল। আবার সামনের মাসে ফের দাম কমতে পারে বলে ইঙ্গিত মিলেছে।’

মন্ত্রীর দাবি, শীতে এলপিজি খরচের হার বৃদ্ধি পায়। এর ফলে চাহিদার সঙ্গে তাল রেখে রান্নার গ্যাসের জোগান বহাল রাখতে দামের উপরে কিছু চাপ এসে পড়ে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত ১০ ফেব্রুয়ারি একলাফে সিলিন্ডারপ্রতি এলপিজির দাম বেড়েছিল ১৪৪.৫০ টাকা। যার ফলে প্রতিটি ১৪.২ কেজি ওজনের সিলিন্ডারের দাম ৭১৪ টাকা থেকে বেড়ে দাঁড়ায় ৮৫৮.৫০ টাকা। গৃহস্থ গ্রাহকের স্বার্থে সিলিন্ডারপ্রতি দাম বেঁধে রাখতে জ্বালানি খাতে ভরতুকির মাত্রা দ্বিগুণ করে দিতে বাধ্য হয় কেন্দ্র।

এলপিজির সম্ভাব্য মূল্যহ্রাস নিয়ে কেন্দ্রীয় পেট্রোলিয়াম ও গ্যাস মন্ত্রীর পূর্বাভাস সম্পর্কে ছত্তিশগড়ের কংগ্রেস মুখপাত্র শৈলেশ নীতিন ত্রিবেদী বলেন, ‘অতীতের মতোই আবার মানুষকে মিথ্যে প্রতিশ্রুতি দিচ্ছে বিজেপি। কংগ্রেসের দাবি, অবিলম্বে এলপিজি গ্যাস সিলিন্ডারের যা দাম বাড়ানো হয়েছে, তা প্রত্যাহার করতে হবে। প্রতিটি সাধারণ মানুষকে এই কারণে সমস্যায় পড়তে হচ্ছে।’

বন্ধ করুন