বাংলা নিউজ > হাতে গরম > দিল্লির করোনা সংক্রমণ রুখতে আরোগ্য সেতু ও ইতিহাস অ্যাপ ব্যবহারে জোর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর
দিল্লি এনসিআর-এ করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতি পর্যালোচনায় বৈঠকে যোগ দেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী হর্য বর্ধন এবং কেন্দ্রীয় সচিবালয়ের কর্তারা। ছবি: পিটিআই। (PTI)

দিল্লির করোনা সংক্রমণ রুখতে আরোগ্য সেতু ও ইতিহাস অ্যাপ ব্যবহারে জোর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর

  • রোগীর দ্রুত হাসপাতালে ভরতি করার বিষয়েও জোর দেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

দিল্লির জাতীয় রাজধানী অঞ্চলে (এনসিআর) করোনা সংক্রমণ রোধ করতে ব্যাপক হারে আরোগ্য সেতু ও ইতিহাস অ্যাপ ব্যবহারের উপরে জোর দিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

এ ছাড়া র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্ট কিট ব্যবহারের মাধ্যমে রাজধানী অঞ্চলে Covid-19 সংক্রমণের হার কমানোর বিষয়েও গুরুত্ব আরোপ করেন শাহ। বৃহস্পতিবার দিল্লিতে করোনা পরিস্থিতি পর্যালোচনার বৈঠকে তিনি রোগীর দ্রুত হাসপাতালে ভরতি করার বিষয়েও জোর দেন।

 

পরে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের মুখপাত্র টুইট করেন, ‘সংক্রমণের হার কমাতে আরও বেশি পরীক্ষা প্রয়োজন এবং সে ক্ষেত্রে র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্ট কিট ব্যবহার করা জরুরি। এই কিট হরিয়ানা ও উত্তর প্রদেশে সরবরাহ করতে পারবে জিওআই।’

 

প্রসঙ্গত, হরিয়ানা ও উত্তরপ্রদেশ জুড়ে তৈরি দিল্লির এনসিআর অঞ্চলে করোনা রোগীর সংখ্যা প্রায় ৯০,০০০ যা দিল্লিতে সর্বাধিক। হরিয়ানায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা আপাতত ১৫,০০০ এবং উত্তর প্রদেশে ২৪,০০০। 

 

বৈঠকে হরিয়ানা ও উত্তর প্রদেশ সরকারকে দিল্লি এইমস-এর টেলি মেডিসিন পরিষেবার সাহায্য নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। 

 

পরে তাঁর মন্ত্রকের মুখপাত্র টুইট করেন, ‘ইউপি ও হরিয়ানা এইমস টেলিমেডিসিন পরিষেবা গ্রহণ করতে পারে যার মাধ্যমে বিশেষজ্ঞদের থেকে পরামর্শ পাওয়া সম্ভব।’ 

বন্ধ করুন