বাংলা নিউজ > কর্মখালি > রাজবংশী ভাষায় ২০০ স্কুলের অনুমোদন, উৎসবের আমেজ কোচবিহারে
ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

রাজবংশী ভাষায় ২০০ স্কুলের অনুমোদন, উৎসবের আমেজ কোচবিহারে

  • মালদহ বাদে উত্তরবঙ্গের সব জেলা মিলিয়ে মোট ২০০ রাজবংশী ভাষার স্কুল রয়েছে। এই স্কুল গুলি অনুমোদনের জন্য মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানিয়েছিলেন গ্রেটার কোচবিহার পিপলস অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক বংশী বদন বর্মন। তিনি জানান, আবেদনে সাড়া দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী স্কুল গুলির অনুমোদন দেওয়ার ঘোষণা করেছেন। এতে তাঁরা অত্যন্ত খুশি।

উত্তরবঙ্গে রাজবংশী ভাষায় প্রায় ২০০টি স্কুলের অনুমোদন দেওয়ার ঘোষণা করেছেন মুখ্য মন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরপরই খুশির হাওয়া কোচবিহার জেলায়। কোচবিহার শহরে অকাল হোলি খেলায় মাতেন গ্রেটার কোচবিহার পিপলস অ্যাসোসিয়েশনের সদস্যরা।

মালদহ বাদে উত্তরবঙ্গের সব জেলা মিলিয়ে মোট ২০০ রাজবংশী ভাষার স্কুল রয়েছে। এই স্কুল গুলি অনুমোদনের জন্য মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানিয়েছিলেন গ্রেটার কোচবিহার পিপলস অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক বংশী বদন বর্মন। তিনি জানান, আবেদনে সাড়া দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী স্কুল গুলির অনুমোদন দেওয়ার ঘোষণা করেছেন। এতে তাঁরা অত্যন্ত খুশি।

প্রতিটি স্কুলে কমপক্ষে ১২০জন পড়ুয়া থাকবে। গড়ে ৪ জন শিক্ষক নিয়োগ করা হচ্ছে। বংশী বদন বর্মন জানান, এতে যেমন রাজবংশী ভাষার প্রচার ও প্রসার হবে, তেমনই বহু কর্মসংস্থান হবে। তাই মুখ্যমন্ত্রীর এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে বুধবার কোচবিহার শহরে এক বর্ণাঢ্য মিছিল করা হয়। গোটা শহর পরিক্রমা করে ওই মিছিল। সংগঠনের নেতৃত্ব দের পাশাপাশি কয়েক হাজার রাজবংশী সম্প্রদায়ের মানুষ মিছিলে অংশ নেন। ঢাক ঢোল নিয়ে হোলি খেলায় মাতেন সংগঠনের সদস্যরা। রাস মেলা র মাঠ থেকে মিছিল শুরু হয়। শহর পরিক্রমা করে ওই মাঠেই মিছিল শেষ হয়।

এর আগে রাজবংশী সম্প্রদায়ের আবেগের সঙ্গে যুক্ত নারায়নী সেনাকে সম্মান জানিয়ে নারায়নী ব্যাটে লিয়ন তৈরির কথা ঘোষণা করেছিলেন মুখ্য মন্ত্রী। এবার রাজবংশী স্কুল গুলি অনুমোদনের ঘোষণা করায় খুশি রাজবংশী সম্প্রদায়ের মানুষ।

বন্ধ করুন