বাড়ি > কর্মখালি > লিখিত পরীক্ষা ছাড়া শিক্ষানবিশ নিচ্ছে পূর্ব রেল, আবেদন অনলাইনে
শিক্ষানবিশ নিয়োগের জন্য অনলাইন আবেদন চাইছে ভারতীয় রেল।
শিক্ষানবিশ নিয়োগের জন্য অনলাইন আবেদন চাইছে ভারতীয় রেল।

লিখিত পরীক্ষা ছাড়া শিক্ষানবিশ নিচ্ছে পূর্ব রেল, আবেদন অনলাইনে

  • গত ৭ ডিসেম্বর থেকে শুরু হয়েছে আবেদনপত্র জমা দেওয়া। ইচ্ছুক প্রার্থীরা আবেদন করতে পারেন আরআরসি-এর ওয়েবসাইটে। ২০২০ সালের ৬ জানুয়ারি পর্যন্ত আবেদনপত্র জমা দেওয়া যাবে।

পূর্ব রেলে ১২১৬টি শূন্যপদে শিক্ষানবিশ নিয়োগের উদ্দেশে অনলাইনে আবেদনপত্র আহ্বান করল রেলওয়ে রিক্রুটমেন্ট সেল (আরআরসি)।

যে সমস্ত পদে শিক্ষানবিশ নিয়োগ করা হবে তার মধ্যে রয়েছে কম্পিউটার অপারেটর এবং প্রোগ্রামিং অ্যাসিস্ট্যান্ট, ফিটার, শিট মেটার ওয়ার্কার, ওয়েলডার,মেশিনিস্ট, মেকানিক (এম.ভি.) ও আরও বিভিন্ন বিভাগীয় কর্মী।

গত ৭ ডিসেম্বর থেকে শুরু হয়েছে আবেদনপত্র জমা দেওয়া। ইচ্ছুক প্রার্থীরা আবেদন করতে পারেন www.rrcbbs.org.in ওয়েবসাইটে ক্লিক করে। ২০২০ সালের ৬ জানুয়ারি পর্যন্ত এই সমস্ত শূন্যপদে শিক্ষানবিশের জন্য আবেদনপত্র জমা দেওয়া যাবে।

শূন্যপদে শিক্ষানবিশ হিসেবে যোগ দিতে আগ্রহী প্রার্থীদের স্বীকৃত শিক্ষা বোর্ডের অধীনস্থ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে দশম শ্রেণির পরীক্ষায় পাশ করা আবশ্যিক। মাধ্যমিক পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বরের ভিত্তিতে প্রার্থী বাছাই করা হবে। এর জ০ন্য কোনও লিখিত পরীক্ষা অথবা ইন্টারভিউ নেওয়া হবে না।

আবেদনপত্রে উল্লিখিত তথ্যের ভিত্তিতে তৈরি হবে বাছাই করা প্রার্থীদের মেধা তালিকা। এ ক্ষেত্রে মাধ্যমিক পরীক্ষায় প্রাপ্ত মোট নম্বরের (ন্যূনতম ৫০% নম্বর থাকতে হবে) সঙ্গে যুক্ত হবে আইটিআই থেকে (সংশ্লিষ্ট কারিগরি বিষয় যার জন্য আবেদন করা হয়েছে) প্রাপ্ত নম্বর।

চূড়ান্ত পর্বে বাছাই হওয়া প্রার্থীদের তাঁদের নথিপত্র/শংসাপত্র যাচাই করার জন্য ডাকা হবে।

শিক্ষাগত যোগ্যতা: মাধ্যমিক পরীক্ষায় অন্তত ৫০% মোট নম্বর থাকতে হবে। সেই সঙ্গে যে শূন্যপদে শিক্ষানবিশীর জন্য আবেদন করা হবে সেই বিষয়ে আইটিআই থেকে তালিম পাওয়ার শংসাপত্র থাকা জরুরি।

চূড়ান্ত পর্বে বাছাই হওয়া প্রার্থীদের শিক্ষানবিশ হিসেবে নিযুক্ত করা হবে। শিক্ষানবিশীর মেয়াদ নির্ভর করবে সংশ্লিষ্ট বিভাগের উপর। শিক্ষানবিশ থাকাকালীন তাঁদের শর্তাবলী অনুযায়ী স্টাইপেন্ড বা বিশেষ ভাতা দেওয়া হবে।

শূন্যপদে নিযুক্ত শিক্ষানবিশদের হস্টেলের সুবিধা দেওয়া হবে না। সে ক্ষেত্রে তাঁদের নিজেদের বসবাসের ব্যবস্থা নিজেদেরই করতে হবে। প্রশিক্ষণ পর্ব সম্পূর্ণ হওয়ার পরে তাঁদের শিক্ষানবিশীর মেয়াদও শেষ হবে এবং তাঁদের ওই পদ থেকে মুক্তি দেওয়া হবে।

বন্ধ করুন