বাংলা নিউজ > কর্মখালি > সরকারি চাকরির আবেদনে বয়সসীমা বাড়াল ত্রিপুরা
সরকারি চাকরির আবেদনে প্রার্থীর বয়সের ঊর্ধ্বসীমা বাড়াল ত্রিপুরা সরকার।
সরকারি চাকরির আবেদনে প্রার্থীর বয়সের ঊর্ধ্বসীমা বাড়াল ত্রিপুরা সরকার।

সরকারি চাকরির আবেদনে বয়সসীমা বাড়াল ত্রিপুরা

  • বিভিন্ন বিভাগ, TPSC, PSU এবং রাজ্য সরকারি সংস্থার মাধ্যমে বিভিন্ন পদে সরাসরি নিয়োগের জন্য চাকরিপ্রার্থীর বয়সের ঊর্ধ্ব সীমায় এক বছর ছাড়ের সিদ্ধান্ত।

বিভিন্ন সরকারি পদে আবেদনের জন্য চাকরিপ্রার্থীদের বয়সের ঊর্ধ্বসীমা ১ বছর বাড়াল ত্রিপুরা সরকার। কোভিড ১৯ জনিত পরিস্থিতির কারণেই এমন সিদ্ধান্ত। বর্তমানে সরকারি চাকরিতে আবেদনের জন্য বয়েসের ঊর্ধ্বসীমা ৪০ বছর।

মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব তাঁর ফেসবুকে লিখেছেন, ‘আমাদের সরকার বিভিন্ন বিভাগ, TPSC, PSU এবং রাজ্য সরকারি সংস্থার মাধ্যমে বিভিন্ন পদে সরাসরি নিয়োগের জন্য চাকরিপ্রার্থীদের বয়সের ঊর্ধ্ব সীমাতে এক বছরের ছাড়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। Covid-19 পরিস্থিতি বিবেচনা করে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তবে শুধুমাত্র একবারের জন্য এই ছাড় দেওয়া হচ্ছে। খুব শীঘ্রই একটি স্মারকলিপি দেওয়া হবে।’

একই তথ্য জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী রতন লাল নাথ বলেন, ‘আমাদের রাজ্যই কেবলমাত্র প্রত্যক্ষ নিয়োগ প্রক্রিয়ায় অংশ নেওয়া প্রার্থীদের বয়সের ঊর্দ্ধসীমায় এককালীন ছাড় দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ সাল পর্যন্ত এটি কার্যকর থাকবে। এই সময়ের মধ্যে চাকরিপ্রার্থীরা যে সব পদের জন্য আবেদন করবেন, শুধু সেগুলিতে এই সুযোগ মিলবে।’

কিছু দিন আগে, অখিল ভারতীয় ছাত্র পরিষদ ( ABVP) মুখ্যমন্ত্রীকে সরকারি চাকরিতে প্রার্থীদের উচ্চ বয়সের সীমা ছাড় দেওয়ার দাবি জানিয়েছিল।

এবিভিপি রাজ্যের সাংগঠনিক সম্পাদক রূপম দত্ত বলেন, বয়সের ঊর্দ্ধ সীমায় এককালীন ছাড় দেওয়ার সিদ্ধান্তের জন্য মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আমরা কৃতজ্ঞ।

বন্ধ করুন