বাড়ি > কর্মখালি > শিক্ষকদের ব্যক্তিগত নথি আটকে রাখা নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়গুলিকে UGC-র সতর্কবার্তা
UGC সমস্ত উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে এমন অনৈতিক কাজ থেকে বিরত থাকার জন্য সতর্ক করল।
UGC সমস্ত উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে এমন অনৈতিক কাজ থেকে বিরত থাকার জন্য সতর্ক করল।

শিক্ষকদের ব্যক্তিগত নথি আটকে রাখা নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়গুলিকে UGC-র সতর্কবার্তা

  • সময়মতো নথি পুনরুদ্ধার করতে না পেরে শিক্ষকদের অনেক ভালো সম্ভাবনা হাতছাড়া হয়ে যায়।

উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও বিশ্ববিদ্যালয়গুলিকে সতর্ক করল বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন বা UGC। বেশ কিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান চুক্তি দেওয়ার সময় তাদের ফ্যাকাল্টিদের আসল নথি নিয়ে নেয় এবং পরবর্তীকালে তাঁরা কোনও ভাল সুযোগ পেলে প্রতিষ্ঠান ছাড়ার সময় সেগুলি ফেরত দিতে অস্বীকার করে। UGC সমস্ত উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে এই ধরনের অনৈতিক কাজ থেকে বিরত থাকার জন্য সতর্ক করল।

UGC-র সচিব রজনীশ জৈন কর্তৃক জারি করা এক কমিউনিকে বলা হয়েছে, অনেক বিশ্ববিদ্যালয়, কলেজ বা ইনস্টিটিউট শিক্ষকদের কর্মসংস্থান চুক্তি প্রদানের সময় মূল অ্যাকাডেমিক শংসাপত্র, মার্কশিট ইত্যাদি সংগ্রহ করে রাখে এবং শিক্ষকদের আটকে রাখার জন্য নথিগুলিও সময় মতো ফেরত দেওয়া হয় না।

UGC-র নোটিশে বলা হয়েছে, ‘শিক্ষকরা চাকরি ছেড়ে দেওয়ার পর ওই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলি থেকে তাদের নথিগুলি পুনরুদ্ধার করতে কঠিন সমস্যার মধ্যে পড়তে হয়। তারা সময়মতো নথিগুলি পুনরুদ্ধার করতে না পারায় তাঁদের অনেকের ভালো সম্ভাবনা হাতছাড়া হয়য়ে যায়। এ তাঁদের অধিকার থেকে বঞ্চিত করার নামান্তর।’

কমিশন বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজগুলিকে নির্ধারিত নিয়মাবলী অনুসারে নিয়োগ সংক্রান্ত সমস্ত চুক্তি পরিষ্কারভাবে করার কথা বলেছে।

UGC-র মতো গত বছর প্রযুক্তিগত শিক্ষা নিয়ন্ত্রক অল ইন্ডিয়া কাউন্সিল ফর টেকনিক্যাল এডুকেশন-ও (AICTE) একই ধরণের সতর্কতা জারি করেছিল।

AICTE বলেছিল যে, কেবলমাত্র তাদের শিক্ষকের নয়, শিক্ষার্থীদেরও শংসাপত্র আটকে রাখার বহু অভিযোগ প্রতিষ্ঠানগুলির বিরুদ্ধে পাওয়া গিয়েছে। এমন অভিযোগ পেলে এবার প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও সতর্ক করা হয়েছিল।

শিক্ষার্থীদের কথা মাথায় রেখে শিক্ষকদের শিক্ষাক্রমের মাঝামাঝি চাকরি ছেড়ে যাওয়ার সময় কমপক্ষে এক মাসের নোটিশ দেওয়ার পরামর্শ দেয় AICTE।

বন্ধ করুন