বাংলা নিউজ > ভোটের লড়াই > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন ২০২১ > রাজ্যের ভোটার হলেন মুকুল–স্বপন, প্রার্থী হওয়া নিয়ে জল্পনা
ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

রাজ্যের ভোটার হলেন মুকুল–স্বপন, প্রার্থী হওয়া নিয়ে জল্পনা

  • বাংলার ভোটার হলেন বিজেপি’‌র রাজ্যসভার সাংসদ স্বপন দাশগুপ্ত এবং দলের সর্বভারতীয় সহ–সভাপতি মুকুল রায়।

আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির পাখির চোখ বাংলা। তাই এখানে ফোকাস পয়েন্ট ভোটার। এই কথা মাথায় রেখেই বাংলার ভোটার হলেন বিজেপি’‌র রাজ্যসভার সাংসদ স্বপন দাশগুপ্ত এবং দলের সর্বভারতীয় সহ–সভাপতি মুকুল রায়। কৈলাস বিজয়বর্গীয়ের ভাষায় যিনি এই নির্বাচনের মূল কাণ্ডারি। এই দু’জনেই ছিলেন দিল্লির ভোটার। মুকুলবাবুর নাম উঠেছে বীজপুর বিধানসভার ভোটার তালিকায়। যেখানে তাঁর বাড়ি। আর স্বপনবাবুর নাম রয়েছে বালিগঞ্জ বিধানসভার ভোটার তালিকায়। সেখানে তাঁর বাড়ি। এখন থেকে এই দু’‌জনকেই বাংলায় বেশি সময় দিতে হবে বলে দিল্লির বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে। তাই এই পদক্ষেপ বলে মনে করছেন রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকরা।

বিজেপি সূত্রে খবর, অমিত শাহের নির্দেশে লোকসভা নির্বাচনের আগে থেকে ধীরে ধীরে রাজ্যে সক্রিয় হয়েছেন স্বপনবাবু। লোকসভা নির্বাচনের আগে রাজ্যের জেলাগুলিতে ঘুরে ঘুরে শিক্ষিত, সচেতন মানুষের মধ্যে পদ্মের প্রভাব বিস্তারের কাজ করতেন তিনি। এবার বিধানসভা নির্বাচনের আগে সক্রিয় হয়ে উঠেছেন তিনি। কিন্তু স্বপনবাবুর কলকাতায় বাড়ি থাকলেও দীর্ঘদিন ধরেই দক্ষিণ দিল্লির বাসিন্দা হওয়ার সুবাদে সেখানকারই ভোটার ছিলেন তিনি। এবার তিনি বালিগঞ্জের ভোটার হওয়ায় তাঁকে নিয়ে জল্পনা বাড়তে পারে। তাহলে তিনি কি এই রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচনে লড়বেন? উঠছে প্রশ্ন।

উল্লেখ্য, মুকুলবাবু অবশ্য দিল্লির ভোটার হয়েছিলেন ২০১৭ সালে। তিনি কি বিধানসভা নির্বাচনে প্রার্থী হবেন? মুকুলবাবু অবশ্য বলেন, ‘বিজেপিকে ক্ষমতায় আনার জন্য কাজ করব।’ জানা গিয়েছে, মুকুল রায় এবং স্বপন দাশগুপ্ত এই দু’‌জন সংগঠনের কাজ করবেন। বিধানসভা নির্বাচনে বিভিন্ন জেলায় চষে বেড়াবেন। তাছাড়া নির্বাচনের রূপরেখা তৈরি করবেন তাঁরা। এলাকায় পড়ে থাকতে হলে সেই রাজ্যের ভোটার হওয়া খুব জরুরি। তাই এই দু’‌জন এখন ভোটার তালিকায় নাম তুললেন।

বন্ধ করুন